ছড়া-কবিতা

মদের গ্লাসে বন্দি নগ্ননৃত্য

  —মো. আলীআশরাফ খান আজকাল ‘শান্তি’ নামের সোনার হরিণটি যেন ধরা-ছোঁয়ার বাহিরে দূর বহু দূর করছে অবস্থান, কোনভাবেই কোন রকম চাষাবাদ কল্পনারজমিনে কিংবা পারছি না বৃক্ষ রোপণের কোন ছবি আঁকতে। রাজ্যাশনে অধিষ্ঠিত যারা তাদের ভাবনার বলয়- যে করে হউক ক্ষমতাবহরে আমরাই করবো জয়! দেশ রসাতলে যায় যাক নেই তাদের কোন ভাবনা, ক্ষমতা চাই-এটাই যেন এখন সকলের মনোবাঞ্ছনা। আহ! শিক্ষা নিয়ে ...

Read More »

দোহাই তোমার, এবার থামো

—মো.আলী আশরাফ খান হে তুমি কি আজকাল খেয়াল করেছো, মানুষজন কি বলছে তোমায়? দিন নেই রাত নেই উন্মাদ বনে গিয়ে সময়ে অসময়ে বাজাও তুমি বিরামহীন নিজের ঢোল নিজের মত করে! লোকজন হাসে বড্ড বেশি হাসাহাসি করে তোমার এই কা-কারখানা দেখে। তিলকে তাল তালকে তিল বানিয়ে যখন তুমি উপস্থাপন করো সভা-সমাবেশে মানুষ তাকায় তোমার দিকে বিস্ময়ের চোখে। তুমি যা নও তা ...

Read More »

ধোঁয়াশার বালুচর

—মো. আলী আশরাফ খান বহু সাধনার পর যা পেলাম আজ গোধুলী বেলায়- তা নিমিষেই হারিয়ে যায় সত্যকে করে অবহেলা! চোখের জলে ভাসে এবুক হৃদয় ফেটে চৌচির, ক্রমেই স্বপ্ন ভেঙ্গে খানখান যেন ধোঁয়াশার বালুচর। মানুষ সত্য যদি ‘মানুষ’ হয় তবে কেনো মানুষ, কষ্ট দেবে স্রষ্টার অমোঘ- নান্দনিক শ্রেষ্ঠ সৃষ্টিরে? ====================== মো. আলী আশরাফ খান গৌরীপুর, দাউদকান্দি, কুমিল্লা।

Read More »

চারদিকে রক্তের দাগ

–মো.আলী আশরাফ খান একদা আমি জন্মেছিলাম এক সবুজ-শ্যামল-কোমল মৃত্তিকায়, দিনে দিনে তা বদলাতে বদলাতে ভিন্ন চিত্র! আজ চেনা বড় দায়। অগনিত শকুনের নখের আঘাতে আঘাতে ক্ষত-বিক্ষত আমার প্রিয় এ মায়ের বুক, ছিন্ন-বিচ্ছিন্ন-বসÍ্রহীন আমার মা আহ! কি যে এই নিদারুণ কষ্ট বলো, বলার ভাষা কোথায় পাই? চারদিকে রক্ত আর লাল-কালো রক্ত রক্তের দাগ বিভীষিকাময় দৃশ্য শত জনমের স¦¦প্ন হয়ে গেছে ধূলিসাৎ। ...

Read More »

এ বিজয় আমার নয়

—-মো. আলী আশরাফ খান এ দিনটি এলেই- আমার চিৎকার করে বলতে ইচ্ছে করে এ বিজয় আমার নয়-আমাদের নয়, অগনিত শকুনের নখের আঁচড়ে আমার-আমাদের বিজয় ম্লান হয়ে গেছে সেই কবে তা আজ আর মনে-ই নেই। এ দিনটি এলেই- আমার ভীষণ কান্না পায়-আমি ব্যথীত হই সকলকে ডেকে জানাতে ইচ্ছে করে, এতোটা বছর পর আমি কি দিতে পেরেছি আমায় কি দিয়েছে এই বিজয় ...

Read More »

আমি ছিলাম আছি থাকবো

—মো. আলী আশরাফ খান তুমি জন্মে যখন পৃথিবীর প্রথম আলো দেখেছিলে তখন আমি তোমার পাশেই ছিলাম। তুমি যখন প্রথম হাঁটতে যেয়ে হোচট খেয়ে পরে যেতে আমি-ই ধরে ছিলাম তখন তোমার হাত । তোমার জীবন গঠন ও উন্নয়নে যত রকম রশদ প্রয়োজন আমি আমি-ই তোমাকে তা শিখিয়ে ছিলাম। তোমার শিক্ষা-দীক্ষা, উপার্জনসহ যে কোন গুরুত্বপূর্ণ কাজ আমায় ব্যতীত কোন দিনও সম্পন্ন হয়নি। ...

Read More »

চারদিকে আলোর বিচ্ছুরণ

—মো. আলী আশরাফ খান আজ প্রভাতে মন আমার নাচে নাচেরে আহ! কি মায়া কি ভালোবাসা হৃদয়ে বাজে এক নতুন সুরের গান। আমার চারদিকে আলো আরো আলো ভোরের দৃশ্য ঘনঘটায় এক অজানা কল্পনায় ছড়িয়েছে আলোর বিচ্ছুরণ। কখন যে হলো দেখা, কখন ভালোবাসা এমনি করে বুঝি মানুষ প্রেমে পড়ে বিশ্ব ষ্টার নান্দনিক অমোঘ সৃষ্টির! প্রকৃতির শব্দ কি যে মধুর বুঝিনি আগে প্রতুষ্যের ...

Read More »

জীবনের জন্য যুদ্ধ

—মো. আলী আশরাফ খান জন্মের পর বাবার দর্শনে মা কিংকর্তব্যবিমূঢ় হয়ে প্রশ্ন করেছিলেন, সত্যিই তুমি খুশী হওনি? কোনো কথা না বলে বাবা জমির আইল বাঁধতে যেয়ে ভাবলেন, কামাই তো খেতে পারবো! এমনি করে সন্তানের সময় পার হয়ে যায় নিরবে যেন কোনো রকম দায়বোধ নেই তার!! খাওয়া-দাওয়া পড়াশোনা মানুষ হওয়ার জন্য মায়ের যেমন চেষ্টা বাবার ছিল সামান্যই তা। জীবনের জন্য যুদ্ধ ...

Read More »

দেখে যেও তুমি

—শামীমা সুলতানা নীলাভ পাখা মেলে মেঠোপথের ধারে যেদিন তোমায় দেখেছিলাম আপন ভেবে আমি হৃদয় মাঝে দিয়েছিলাম ঠাঁই। সত্যিই-সত্যি! ভাবিনি কখনও এমনি করে আমায় করবে পর চলে যাবে দূরে বহু দূরে ফিরবে না আর কখনও। বিশ্বাস করো, আজ আমি বড়ই নিঃস্ব চারদিকে নিগুঢ় অন্ধকার অথৈ সাগর মাঝে ছোট্ট তরী ডুবে যেন একাকার। যেই তুমি বলেছিলে, ভালোবাস সত্যিই আমায় পৃথিবীর সবচেয়ে বেশি ...

Read More »

খুব বেশি মনে পড়ে

–মো. আলী আশরাফ খান আজ আমার খুব বেশি মনে পড়ে, প্রথম দেখাতে সেই অজপাড়াগায়ের মা হারা ছোট্ট পাখিটির দাপাদাপিতে আমি অস্থির হয়ে পড়েছিলাম। অযত্ন আর অবহেলায় যে পাখিটার সারা শরীর ছিল ক্ষত-বিক্ষত পুষ্টিহীন রোগাক্রান্ত দেহটা ছিল কংকালাসার মাথায় যেন ঘর বেধেছিল পোকামাকড় পরনে ছেঁড়া-ফাটা তামাটে রংয়ের জামা, আজো আমার চুখে ভেসে উঠে সেই করুণ চিত্র। আজ আমার খুব বেশি মনে ...

Read More »

বৈশাখ বলে করি চিৎকার!!

–মো. আলী আশরাফ খান বছর ঘুরে আসে আমাদের উৎসব বাঙালির ঘরে ঘরে বৈশাখী আনন্দ আয়োজন, বেজে উঠে হৃদয়ে সেই সুর নতুন সাজে ঘরে বাহিরে কি আনন্দ! আনন্দরে সব মনে। আহ! কি মজারে বাঁশের বাঁশি হরেকরকম খেলনা তালপাখার বাতাস জুড়ায় খরতাপে প্রাণ, জিলেপী-মিঠাই পান্তা খাওয়া সে যে কত মজা বুঝবে না কেউ প্রকৃত বাঙালি না হলে তা। অথচ, আজ আমরা অনেকেই ...

Read More »

বৈশাখ আসে ঘুরে ঘুরে

—কাজী কোহিনূর বেগম তিথি বৈশাখ আসে ঘুরে ঘুরে বছর শেষে আমাদের মাঝে নতুন বছরের বার্তা নিয়ে বাংলার আশির্বাদ হয়ে- নতুন রুপে সাঁজায় সে সোনার বাংলাকে- আনন্দ মুখরিত পরিবেশ দিয়ে- পাšতা ইলিশ আর পিঠা উৎসবে – মুখরিত হয়ে উপভোগ করে বাংলার মানুষে। সব ধর্মের মানুষেরা শরীক হয় এই উৎসবে বৈশাখ তাই এনে দেয় সম্পৃক্ত বন্ধনে- এসো সবাই বৈশাখে মোরা মনে করি ...

Read More »

এসো ভাই-বন্ধু

—-মুহাম্মদ ফয়সাল খান শহীদ! শহীদ!! শহীদ!!! শহীদ মানে কি জানো? আল্লাহর পথে, নবীর মতে যেজন করে জীবন দান, সেজন শহীদ-বীর শহীদ সেই পাবে শহীদের সম্মান। তোমরা যাদের শহীদ বলে বারংবার করছো অপমান, নয়তো ওরা শহীদ-গাজী ওরা মানুষ-মানুষ মহান। এসো ভাই-বন্ধু মিলেমিশে সাজাই আমাদের প্রিয় দেশ, সঁপি স্রষ্টার তরে নিজেকে জীবন গড়ি শান্তির আবেশ।         মুহাম্মদ ফয়সাল খান ...

Read More »

ক্ষমা চাই তোমার তরে

—-মো. আলী আশরাফ খান তোমার বিয়োগে হৃদয় আমার ফেটে চৌচির বাঁকরুদ্ধ আর চারপাশ আচ্ছন্ন অন্ধকার, এমনি করে তুমি চলে যাবে অবেলায়-অসময় হায়! আজ রক্ত ঝরে-কাঁদে অগনিত প্রাণ। ‘স্বর্ণা’ তোমার অসুস্থতার কথা শুনে দেরি করিনি- দৌঁড়ে গিয়েছিলাম সেই চিরচেনা নীড়ে, ততক্ষণে তুমি পার্থিব টানাপড়েনের মিলিয়ে হিসেব চলো গেছো না ফেরার দেশ পরপারে। তোমার বিরহে  মুহমান পিতা-মাতা পরিবার পরিজন অন্তর জ্বালায় বদন ...

Read More »

মুক্তির ইতিহাস

মোঃ আলাউদ্দিন:– আমি বলছি ১৯৭১ সালের সেই মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস। ২৫ মার্চ কালো রাতে যখন পাকিস্তানি বাহিনী ঝাপিড়ে পড়ে ঘুমন্ত-নিরস্ত্র বাঙালীর উপর। তখন, বাংলা জেগেছে- বাঙলা জেগেছে জেগে উঠে পুরো বাংলাদেশ। লাখো-লাখো বাঙালী অস্ত্র হাতে দীর্ঘ নয় মাস যুদ্ধ করে পাকিস্তানী বাহিনীকে করেছে শেষ। ১৯৭১ এর ১৬ই ডিসেম্বর আমরা পেয়েছি আমাদের এই বাংলাদেশ। মোঃ আলাউদ্দিন স্নাতক (সম্মান) ১ম বর্ষ রসায়ন বিভাগ ...

Read More »