দেবিদ্বারে স্কুল ছাত্রীকে অপহরনের চেষ্টাঃ অপহরনকারী আটক


দেবিদ্বার (কুমিল্লা) প্রতিনিধিঃ
দেবিদ্বারে অষ্টম শ্রেণীর এক স্কুল ছাত্রীকে বিদ্যালয়ে যাওয়ার পথে অপহরনের চেষ্টার অভিযোগে জহিরুল ইসলাম জহির (২৪) নামে এক সিএনজি চালকে আটক করেছে পুলিশ। ঘটনাটি ঘটে মঙ্গলবার সকাল ৯টায় উপজেলার মাশিকাড়া গ্রামের জোড়পুল এলাকায়। আটক সিএনজি চালক উপজেলার ধামতী গ্রামের রোসমত আলীর পুত্র।
স্থানীয়রা জানান, ভিক্টিম স্কুল ছাত্রী (১৪) উপজেলার মাশিকাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণীর ছাত্রী। মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৯টায় ওই স্কুল ছাত্রী বাড়ি থেকে স্কুলে যাওয়ার জন্য রওনা হয়। পথে সিএনজি চালক জহির তার নিজস্ব সিএনজি দিয়ে ওই স্কুল ছাত্রীকে বিদ্যালয়ের সামনে নামিয়ে দেয়ার কথা বলে সিএনজিতে উঠায়। সিএনজি চালক বিদ্যালয়ে না এসে অন্যদিকে জোড়পুল সড়কের দিকে দ্রæত পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। এসময় ওই ছাত্রী সিএনজি থামাতে বললেও সে না থামিয়ে দ্রæত ‘দেবিদ্বার-চান্দিনা’ সড়কের দিকে এগিয়ে যেতে থাকে। এসময় ছাত্রীটি সূর চিৎকার শুরু করলে চালক সিএনজি থামিয়ে ছাত্রীকে হাত মুখ চেপে ধরে শ্লীলতাহানীর চেষ্টা করে। ছাত্রী নিজেকে বাঁচাতে সিএনজি থেকে লাফ দেয় এবং চিৎকার করতে থাকে। ছাত্রীর চিৎকারে পথচারী ও পার্শ^বর্তী বাড়ির লোকজন এসে তাকে উদ্ধার এবং সিএনজি চালককে আটক করে পুলিশকে খবর দেয়। সংবাদ পেয়ে দেবিদ্বার থানার উপ-পরিদর্শক(এসআই) চন্দন চন্দ্র দাসসহ একদল পুলিশ ঘটনাস্থল গিয়ে অপহরনকারী ও ভিক্টিমকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।
মাশিকাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ মোকতল হোসেন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, বিদ্যালয়ে আসার পথে মেয়েটিকে অপহরণ এবং এক পর্যায়ে শ্লীলতাহানীর চেষ্টা করলে স্থানীয়দের সহায়তায় ভিক্টিমকে উদ্ধার ও অপহরণকারীকে আটক করা হয়, পরে পুলিশে সোপর্দ করা হয়।
এ ব্যাপারে মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৫টায় দেবিদ্বার থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কমল কৃষ্ণ ধর জানান, সংবাদ পেয়ে আমাদের পুলিশ ভিক্টিমকে উদ্ধার এবং সিএনজিসহ অভিযুক্ত সিএনজি চালককে থানায় নিয়ে আসে। ভিক্টিমের বাবা বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

Check Also

দেবিদ্বারে আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত

দেবিদ্বার প্রতিনিধিঃকুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার ১০ নং গুনাইঘর দক্ষিণ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। ...