মেডিকেল কলেজ ছাত্রী হত্যাকারীদের শাস্তিরদাবীতে কাবিলায় সহপাঠিদের মানববন্ধন

মো. জাকির হোসেন :–
কুমিল্লা ইস্টার্ন মেডিকেল কলেজের ৪র্থ বর্ষের ছাত্রী উম্মে আয়মন সুলতানা স্বর্ণার হত্যাকারীদের শাস্তির দাবীতে গতকাল বুড়িচং উপজেলার মোকাম ইউনিয়নের কাবিলা ইস্টান মেডিকেল কলেজের সামনে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে কলেজের শিক্ষক, চিকিৎসক, ছাত্র-ছাত্রী, কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ এক মানববন্ধন করেন।
মানববন্ধনে অংশগ্রহন করেন কলেজের উপধ্যক্ষ প্রফেসার ডাঃ আতাউর রহমান, হাসপাতালের পরিচালক প্রফেসার ডাঃ কলিম উল্লাহ, স্বর্ণার বাবা ডাঃ আবদুল খালেকসহ পরিবারের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। মানববন্ধনে বক্তারা বলেন দ্রুত হত্যাকারীদের গ্রেফতার করে অবিলম্বে শাস্তির আওতায় এনে দৃষ্ঠান্ত শাস্তি দিতে হবে। উল্লেখ্য, জেলার ব্রহ্মণপাড়া উপজেলার শশীদল গ্রামের ডাঃ আবদুল খালেকের মেয়ে কুমিল্লা ইষ্টার্ন মেডিকেল কলেজের ৪র্থ বর্ষের ছাত্রী উম্মে আয়মন সুলতানা স্বর্ণা(২৪) এর সাথে গত ১ বছর পূর্বে একই গ্রামের নূরুল ইসলাম (নান্নু মিয়া) এর ছেলে জামিল হোসেন ইমনের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে ৫ লক্ষ টাকা যৌতুক এনে দেবার জন্য স্বামী ও শ্বশুড় বাড়ির লোকজন প্রায়ই তাকে মানসিক ও শারীরীক ভাবে নির্যাতন করত। গত শুক্রবার সন্ধ্যায় স্বামী ও শ্বশুড় বাড়ির লোকজন যৌতুকের টাকা নিয়ে কথা কাটাকাটির এক পর্যায় স্ত্রী স্বর্ণাকে মোবাইল চার্জারের তার গলায় পেচিয়ে এবং নাকে-মুখে বালিশ চেপে ধরে মৃত্যু নিশ্চিত করে তাকে বিছানায় তাকে বিছানায় ফেলে রেখে স্বামী ও শ্বশুড় বাড়ির লোকজন পালিয়ে যায়। এসময় এলাকাবাসী তার শ্বশুর নান্নু মিয়াকে পালিয়ে যাবার সময় আটক করে। এ ঘটনায় স্বামী ইমনকে প্রধান আসামী করে তার বাবা, দুই ভাই জাকির হোসেন সুমন ও জাহিদ হোসেন সুজন, দুই ভাবী ফাতেমা বেগম ও তানিয়া আক্তারসহ মোট ৬ জনকে আসামী করে থানায় হত্যা মামলা দায়ের করে।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...