দেবিদ্বারের গুনাইঘরে আবারো ৬ষ্ঠ শ্রেনীর ছাত্রীকে ধর্ষণ : ধর্ষক আটক

মোঃ আক্তার হোসেনঃ–
একটি ইউনিয়নের অভিবাবক হলো চেয়ারম্যান। সে চেয়ারম্যানই যদি করে ধর্ষণের মত অপরাধ, তাহলে ওই ইউনিয়নের বখাটে যুবকরাতো সে পথেই হাঁটবে, এটাই প্রমান করলো কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার গুনাইঘর উত্তর ইউনিয়নের যুবক বিল্লাল। গত মাসেই পুলিশের তদন্তে ধর্ষনের অভিযোগ প্রমানীত হওয়া স্থানীয় চেয়ারম্যান খোরশেদ আলমের বিরুদ্ধে কুমিল্লার আদালতে চার্জসীট দাখিল করেছে কুমিল্লা সদর থানা পুলিশ। এরই মধ্যে আজ বুধবার দুপুরে ৬ষ্ঠ শ্রেনীর এক স্কুল ছাত্রীকে জোরপূর্বক ভাবে ধর্ষণের অভিযোগে ওই ইউনিয়নের বিল্লাল হোসেন (২৪) নামের এক যুবককে পুলিশ আটক করেছে।
স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, দেবিদ্বার উপজেলার গুনাইঘর (উত্তর) ইউনিয়নের বাকসার উচ্চ বিদ্যালয়ের ৬ষ্ঠ শ্রেনীর এক ছাত্রী পরীক্ষা দিয়ে বাড়ি ফেরার পথে বৃষ্টি ও নির্জন জায়গা পেয়ে উনঝুটি গ্রামের মিজানুর রহমানের ছেলে বিল্লাল হোসেন (২৪) জোরপূর্বক একটি পরিত্যাক্ত বাড়ির পেছনে ঝোপের মধ্যে নিয়ে যায় এবং সেখানে ওই স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ করে। ওই সময় মেয়েটির আত্ব-চিৎকারে পাশের লোকজন ছুটে আসলে ধর্ষনকারী পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে এস.আই মোঃ জাকির হোসেন’র নেতৃত্বে একদল পুলিশ রাতেই ধর্ষক বিল্লাল হোসেনকে আটক করেন। রাত সাড়ে ৯টায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত বিকটিমের মা বাদী হয়ে দেবিদ্বার থানায় মামলা দায়ের করার প্রস্তুতি নিচ্ছে।
এ ব্যাপারে দেবিদ্বার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ মিজানুর রহমান জানান, ধর্ষককে আটক করা হয়েছে এবং এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হচ্ছে।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...