মতলব উত্তরে আইন-শৃংখলার অবনতি : মোটর সাইকেল চুরির হিড়িক

শামসুজ্জামান ডলার :–

মতলব উত্তর উপজেলায় সাম্প্রতিককালে মোটর সাইকেল চুরির হিড়িক পড়েছে। বাসাবাড়ীতে হানা দিয়ে অভিনব পদ্ধতিতে তালা ভেঙ্গে, দরজা বা গ্লীল কেটে নিয়ে যাচ্ছে দামী সব মোটর সাইকেল। দিনের বেলায় কোথায়ও রেখে গেলে মুর্হুত্বে সংঘবন্ধ চক্র হাওয়া করে দিচ্ছে। চোরের টার্গেট দামি গাড়িগুলো।
বুধবার রাতেই উপজেলার কলাকান্দা ইউপি সদস্য দেলোয়ার হোসেন ও ছেংগারচর বাজারের ব্যবসায়ী সফিকুল ইসলামের পালসার হোন্ডা হানিরপাড়ের নিজ বাড়ী থেকে চুরি হয়। কয়েকদিন পূর্বে পালালোকদি গ্রামের মিজানুর রহমানের নিজ বাড়ী থেকে দু’টি হোন্ডা বিল্ডিংয়ের কলাপসিকের গেইটের তালা ভেঙ্গে নিয়ে যায় চোরচক্র। গত সপ্তাহে উপজেলার ফরাজীকান্দি ইউনিয়নের বালুচর গ্রামের ওয়ালিউল্যাহ দেওয়ানের ছেলের মোটরসাইকেলটি রাতের আধারে ঘরের তালা ভেঙ্গে চুরি হলে কোন খোজ খবরেও তা আর পাওয়া যায়নি। এমনকি কয়েক মাস পূর্বে নিজ ঘর থেকে ফতেপুর পূর্ব ইউপি’র চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি আজমল হোসেন চৌধুরীর পালসার মোটরসাইকেলটি চুরি হলে উপজেলার আইন-শৃংখলা সভায় বিষয়টি নিয়ে ব্যপক আলোচনা হলেও কোন লাভ হয়নি। নিজ বসত ঘর থেকে চুরি হয় ফরাজীকান্দি ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক হেলাল উদ্দিন সরকারের মোটর সাইকেলটি। দিনে দুপরে চুরি হয় ছেংগারচর বাজার থেকে বাজারের ব্যবসায়ী শাখাওয়াত সরকারের মোটরসাইকেল। যার কোনটিই আর পাওয়া যায়নি।
এদিকে ছেংগারচর বাজারের সুমি টেলিকমের মালিক মিজানুর রহমানের চুরিকৃত সিডিআই হোন্ডাটি সাদুল্লাপুর এলাকা থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। বুধবার রাতে মতলব উত্তর থানার এসআই আবু হানিফ চোরাই হোন্ডাসহ রফিক নামে একজনকে আটক হয়েছে। প্রায় প্রতি রাতেই উপজেলার কোন না বাড়ি থেকে হোন্ডা চুরি হচ্ছে।
মতলব উত্তর উপজেলায় ভাড়ায় মোটর সাইকেল চালানো হয়। ভাড়ায় চালিত হোন্ডার বেশির ভাগই চোরাই গাড়ি। নেই কোন কাগজপত্র। এ কাজে দেশের বিভিন্ন জেলার লোকজন রয়েছে। তারা বিভিন্ন জেলা থেকে চোরাই হোন্ডা এনে বিক্রি করে থাকে। কয়েকটি চক্র চোরাই হোন্ডা কেনা-বেচার সাথে জড়িত বলে বিভিন্ন মহলের ধারনা। এসবের কারনে সম্প্রতি উপজেলার বিভিন্ন স্থানে দিনে দুপরে ঘটছে ছিনতাই। স্কুল-কলেজ পড়–য়া মেয়েদের গলাথেকে সোনার চেইন ছিনিয়ে নেয়ারমতো একাাধিক ঘটঁনা ঘটেছে এই উপজেলায়। মোটরসাইকেল চুরির হিড়িক, চোরাই মোটরসাইকেলে দিনে-দুপরে ছিনতাই, চোরাই মোটরসাইকেলে মাদক পরিবহন হচ্ছে। এ উপজেলায় চোরাই মোটরসাইকেলের অবাধ বিচরন, চোরাই মোটরসাইকেল অবাদে বেচা-কেনা, অবিনব কায়দায় মোটরসাইকেল ছিনতাই সর্বেপরি এইসবের কারনে পুলিশ প্রশাসনের আন্তরিকতা সত্বেও বর্তমানে মতলব উত্তর থানার আইন-শৃংখলা বিগ্নিত হচ্ছে মারাত্বকভাবে।
সাম্প্রতিককালে হোন্ডাচুরির বিষয়টি আশঙ্কাজনক ভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে। বর্তমানে মতলব উত্তর উপজেলায় ভাড়া ও ব্যক্তি পর্যায়ের মোটরসাইকেল চলাচল করছে দু’সহ¯্রাধিক। অবৈধ মোটরসাইকেলের বেপরোয়া বিচরনে আইন-শৃংখলা বিগ্নিত হবার কারনে উপজেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির একাধিক সভায় বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হলেও এখনো প্রয়োজনমাফিক ব্যবস্থা নেয়া হয়নি।
মতলব উত্তর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সৈয়দ মাহবুবুর রহমান বলেন, এ উপজেলায় ভাড়ায় মোটর সাইকেল চালানোর প্রচলন রয়েছে। ভাড়ায় মোটর সাইকেল বন্ধ করতে পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে। ভাড়ায় চালিত মোটর সাইকেলগুলির বেশির ভাগই কাগজপত্র বিহীন। অবৈধ, কাগজপত্র বিহীন মোটর যানের বিরুদ্ধে আমাদের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। মোটর সাইকেল চুরি বন্ধ করতে করতে ও এ চক্রকে আটক করতে পুলিশ কাজ করছে।

Check Also

কুমিল্লায় তিন গৃহহীন নতুন ঘর পেল

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ– কুমিল্লা সদর উপজেলায় গ্রামীণ উন্নয়ন সংস্থার উদ্যোগে ৪নং আমড়াতলী ইউনিয়নের গৃহহীন নুরজাহান বেগম, ...

Leave a Reply