কুমিল্লায় যৌতুক না পেয়ে গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন, মারা গেল গৃহবধূ তাছলিমা

মো. আবদুল জলিল ভূঁইয়া,কুমিল্লা :–

কুমিল্লায় যৌতুকের দাবি মেটাতে না পারায় তাছলিমা আক্তার নামে এক গৃহবধূর গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে সারা দেহ ঝলসে দেয় স্বামীসহ শ্বশুর বাড়ির লোকজন। সোমবার ভোরে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের বার্ণ ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান ওই গৃহবধূ। এ ঘটনায় পুলিশ ৩ জনকে আটক করেছে।
স্থানীয় ও গৃহবধূর পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, জেলার বরুড়া উপজেলার বাড়াইপুর গ্রামের আবু তাহেরের কন্যা তাছলিমা আক্তারের (২৫) সাথে প্রায় ৭ বছর আগে সদর দক্ষিণ উপজেলার জাঙ্গালিয়া দক্ষিণ কাচার (জামমুড়া) গ্রামের আহাম আলীর পুত্র রুহুল আমিনের সাথে বিয়ে হয়। তাছলিমার দিনমজুর পিতা আবু তাহের জানান, বিয়ের বছর খানেক পর থেকে শ্বশুর বাড়ির লোকজন তাছলিমার কাছে বিভিন্ন সময় যৌতুক দাবি করে আসছিল। যৌতুকের দাবি মেটাতে না পারায় বিভিন্ন সময়ে তার উপর অমানবিক নির্যাতন চালানো হতো। এ নিয়ে একাধিকবার শালিস বৈঠকও হয়। এদিকে গত শনিবার সকালে স্বামী রুহুল আমিনসহ শ্বশুর বাড়ির লোকজন তাছলিমাকে ২৫ হাজার টাকা নিয়ে আসার জন্য তার পিতার বাড়িতে পাঠায়। দরিদ্র পিতা টাকা দিতে না পারায় তাছলিমা ওইদিন বিকালে খালি হাতে তার শ্বশুর বাড়িতে ফিরে আসে। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে স্বামীসহ শ্বশুর বাড়ির লোকজন তাছলিমাকে শনিবার সন্ধ্যায় প্রচন্ড মারধর করে এবং রাতে তার গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়। পরে তাকে মুমুর্ষূ অবস্থায় ঘর থেকে বের করে বাড়ির পার্শ্ববর্তী রাস্তার পাশে ফেলে রাখে। খবর পেয়ে তাছলিমার আত্মীয়-স্বজন ও স্থানীয় লোকজন এসে তাকে উদ্ধার করে প্রথমে কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ও পরে আশংকাজনক অবস্থায় রবিবার সকালে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করে। গৃহবধূর মামাতো ভাই স্কুল শিক্ষক নূরুন্নবী সিদ্দিক জানান, তাছলিমা আক্তারের শরীরের প্রায় ৮০ ভাগ পুড়ে গেছে। চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার ভোরে সে মারা যায়। নিহত ওই গৃহবধূর ইয়াছিন (৫), সাব্বির (৩) ও মীম (৬ মাস) নামে ৩ শিশু সন্তান রয়েছে। সদর দক্ষিণ মডেল থানার ওসি প্রশান্ত পাল জানান, এ ঘটনায় নিহতের মা শাহেরা খাতুন বাদী হয়ে তাছলিমার স্বামী রুহুল আমিন, শ্বশুর আহাম আলী, শ্বাশুরি আফছারুন্নেছাসহ ৮ জনকে আসামি করে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। আসামিদের মধ্যে নিহতের স্বামীর বোন আমেনা আক্তার, মামাতো বোন সালেহা বেগম ও পিয়ারা বেগমকে আটক করা হয়েছে। অপর আসামিদের ধরতে চেষ্টা চলছে।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply