ফজল শাহাবুদ্দীনের ইন্তেকালে বাচসাসের শোক প্রকাশ

বিনোদন প্রতিবেদক :–
বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সাংবাদিক সমিতি (বাচসাস)-এর প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক ফজল শাহাবুদ্দীনের ইন্তেকালে শোক প্রকাশ করেছেন বাচসাসের সভাপতি আবদুর রহমান ও সাধারণ সম্পাদক ইকবাল করিম নিশান। এক শোক বার্তায় বাচসাস মরহুমের বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন।

উল্লেখ্য, ষাটের দশকের কবি ও সাংবাদিক কবি ফজল শাহাবুদ্দীন আজ রবিবার সকাল সোয়া ১০টায় রাজধানীর মধ্য বাসাবোর নিজ বাসভবনে ইন্তেকাল করেন (ইন্নালিল¬াহে…রাজিউন)। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭৮ বছর।  তিনি দীর্ঘদিন ধরে অসুস্থ ছিলেন। মৃত্যুকালে এক মেয়ে ও দুই ছেলে রেখে গেছেন তিনি। তার স্ত্রী আজমেরী শাহাবুদ্দীন লেখক ও শিক্ষাবিদ। জাতীয় প্রেসক্লাবে প্রথম নামাজে জানাজা এবং বাংলা একাডেমিতে দ্বিতীয় জানাজা শেষে বনানী কবরস্থানে দাফন দেয়া হয়।

তিনি জাতীয় প্রেসক্লাবের সদস্য এবং বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সাংবাদিক সমিতি (বাচসাস) এর প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক ছিলেন।  কবি ফজল শাহাবুদ্দীন বাংলাদেশের একজন খ্যাতিমান আধুনিক কবি।  তাঁর জন্ম  ১৯৩৬ সালের ৪ ফেব্রুয়ারি কুমিল্লায়। তবে শৈশব থেকেই ঢাকাতে বসবাস করে আসছেন

সাংবাদিকতা করেছেন দৈনিক বাংলায়, সাপ্তাহিক বিচিত্রা ও নান্দনিক বিচিত্রা। সাপ্তাহিক বিচিত্রা তার হাত ধরেই বের হয়। স্বাধীন বাংলাদেশে সাপ্তাহিক পত্রিকার প্রচলনে তিনি পথিকৃতের ভূমিকা রেখেছেন। বসন্তকালীন কবিতা উৎসব ও এশীয় কবিতা উৎসবের তিনি অন্যতম উদ্যেক্তা। বাংলা সাহিত্যে অবদানের জন্য তিনি ১৯৭৩ সালে বাংলা একাডেমী সাহিত্য পুরস্কার ও ১৯৮৮ সালে একুশে পদক পান।

তার বিখ্যাত কাব্যগ্রন্থ তৃষ্ণার অগ্নিতে একা। কবিতায় আধ্যাত্মিকতা, দেহতত্ত্ব ও উগ্র রোমান্টিকতার জন্য তিনি খ্যাতি লাভ করেন। তার কিছু বিখ্যাত গানের মধ্যে- চেনা চেনা লাগে তবু অচেনা, ভালোবাসো যদি কাছে এসো না’ (ছায়াছবি সূর্যকণ্যা)। তার প্রকাশিত গ্রন্থ সংখ্যা ২৭।

Check Also

কুমিল্লায় তিন গৃহহীন নতুন ঘর পেল

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ– কুমিল্লা সদর উপজেলায় গ্রামীণ উন্নয়ন সংস্থার উদ্যোগে ৪নং আমড়াতলী ইউনিয়নের গৃহহীন নুরজাহান বেগম, ...

Leave a Reply