কুমিল্লার তিতাসে শিক্ষা অফিসের নয়া বাণিজ্য একদিনে প্রশংসাপত্র বিক্রি করে আয় ২০ হাজার

নাজমুল করিম ফারুক :–
তিতাসে শিক্ষা অফিসের নয়া বাণিজ্যের হতবাক বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধানগণ। গতকাল সোমবার প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষার ফলাফল বিতরণের পাশাপাশি প্রশংসাপত্র বিক্রি করে আয় করেছে প্রায় ২০ হাজার টাকা।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সোমবার বেলা সাড়ে ১২টায় প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশের পূর্ব মুহুর্তে উপজেলা শিক্ষা অফিসে আগত বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধানদের নিকট বাধ্যতামুলক ভাবে প্রশংসাপত্র বিক্রি শুরু করে। সদ্য প্রকাশিত ফলাফলে দেখা যায়, ৪ হাজার ১শ ৮৫ জন পাস করে। প্রতি শিক্ষার্থী জন্য ৫ টাকা করে উক্ত প্রশংসাপত্র বিক্রি করা হয়। ইতিমধ্যে প্রায় ৪ হাজার শিক্ষার্থীর জন্য উক্ত প্রশংসাপত্র বিক্রি করা হয়েছে বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন প্রধান শিক্ষক জানান, ৫ টাকা করে প্রশংসাপত্র ক্রয় করে ৫০ টাকা আদায় করার একটা রাস্তা পাওয়া গেল।
উপজেলা শিক্ষা অফিসার কামাল উদ্দিন দেওয়ান বলেন, বিষয়টি যখন আমার নজরে আসে তাৎক্ষণিক তা বন্ধ করে দেয়া হয়েছে, তবে তিনি জানান, শিক্ষার্থীদের অন্যত্র ভর্তি হওয়ার জন্য প্রশংসাপত্রের বাধ্য-বাধকতা নেই। উপজেলা সহকারী শিক্ষা অফিসার মোঃ কামাল হোসেন জানান, উপজেলার শিক্ষক নেতা সাখাওয়াত হোসেন, মাহাবুবুর হক সরকার, আক্তার হোসেন ও খন্দকার নুরুল আলম এর সাথে আলাপ করেই প্রশংসাপত্র ছাপা হয়েছে এবং বিক্রি করা হচ্ছে। তবে শিক্ষক নেতারা এ অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, গত কয়েক বছর যাবৎ এ কাজটি শিক্ষা অফিস ধারাবাহিকভাবে করে আসছে।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply