চান্দিনা সদরে হরতাল আতঙ্ক ছড়িয়েছে বিএনপি; নাশকতা ঠেকাতে আওয়ামীলীগের অবস্থান

মাসুমুর রহমান মাসুদ,চান্দিনা (কুমিল্লা):–

ক্রমেই উত্তপ্ত হয়ে উঠছে চান্দিনা। হরতালের গুজব ছড়িয়ে চান্দিনা উপজেলার সদরে আতঙ্ক সৃষ্টি করেছে বিএনপি। বৃহস্পতিবার (১৪ নভেম্বর) সকাল থেকে বিকেলে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত আতঙ্কে চান্দিনা হাইস্কুল মার্কেট, পূর্ব বাজার, থানা রোড এলাকায় অনেক ব্যবসায় প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখেন ব্যবসায়ীরা। ওই ঘটনায় গোটা উপজেলায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। সকালে এ বিষয়ে অবহিত হয়ে পৌর আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক মো. মফিজুল ইসলাম কমিশনার এর নেতৃত্বে আওয়ামীলীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপজেলা সদরে অবস্থান নেন। নাম প্রকাশ না করার শর্তে ব্যবসায়ীরা অভিযোগ করেন, বুধবার (১৩ নভেম্বর) বিকেলে কতিপয় বিএনপি নেতাকর্মী ও বিএনপি পন্থী ব্যবসায়ীরা কুমিল্লা উত্তর জেলা বিএনপি’র সভাপতি আলহাজ্ব মো. খোরশেদ আলমসহ বিএনপি নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করার প্রতিবাদে হরতাল এবং দোকান-পাট বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেন। রাতে হঠাৎ করেই তারা পূর্ব বাজার, থানা রোড এলাকায় ব্যবসায়ীদের বৃহস্পতিবার দোকান বন্ধ রাখার নির্দেশ দেন। বুধবার রাত ভর এ নিয়ে উপজেলা সদরে উত্তেজনা বিরাজ করে। পরে বৃহস্পতিবার সকাল থেকে ব্যবসায়ীরা ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা পেতে দোকান-পাট বন্ধ রাখেন। খবর পেয়ে আওয়ামীলীগ নেতাকর্মীরা উপজেলা সদরে অবস্থান নেন। আওয়ামীলীগ সূত্রে জানাযায়, এসময় তারা নাশকতা ঠেকাতে উপজেলা সদরে মহড়া দেন এবং ব্যবসায়ীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার আশ্বাস দিয়ে দোকান খুলতে অনুরোধ জানান। চান্দিনা পৌর আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক ও চান্দিনা বাজার বণিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মফিজুল ইসলাম কমিশনারের নেতৃত্বে এসময় উপস্থিত ছিলেন- উপজেলা যুবলীগ সাধারণ সম্পাদক মো. জাহাঙ্গীর আলম, জেলা যুবলীগ সহ-সভাপতি কাজী সাইফুজ্জামান মফিজ, বাড়েরা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক মো. সেলিম ভূইয়া, ছাত্রলীগ নেতা লিটন সরকার, আওয়ামীলীগ নেতা মফিজুল ইসলাম মৌক্কা, উপজেলা যুবলীগ সদস্য মিজানুর রহমান, হাসান গাজী, জাহাঙ্গীর, মনির, স্বপন, সুমন, রহমত, ফারুক প্রমুখ। এদিকে চান্দিনা পৌর বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র শাহ্ মো. আলমগীর খান জানান, চান্দিনায় হরতাল বা দোকান বন্ধ রাখতে বিএনপি’র কোন দলীয় কর্মসূচী ছিল না। তিনি আরও বলেন, কুমিল্লা উত্তর জেলা বিএনপি’র সভাপতি আলহাজ্ব মো. খোরশেদ আলম, চান্দিনা উপজেলা বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা মফিজ উদ্দিন ভূইয়া, পৌর বিএনপি’র সভাপতি এবিএম সিরাজুল ইসলামসহ আমার এবং আমার পৌরসভার বিএনপি সমর্থিত কাউন্সিলরদের বিরুদ্ধে সম্প্রতি একটি মামলা হয়েছে। মূলত বিএনপি’র এই নেতাদের শুভাকাক্সক্ষী ব্যবসায়ীরা স্বউদ্যোগে দোকান-পাট বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেয়।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply