কুমিল্লা মেডিকেলে শিবিরকর্মী সন্দেহে ৭৩ আটক

কুমিল্লা:–
কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ এলাকার একটি কমিউনিটি সেন্টার থেকে ‘আমরা ধূমপান নিবারণ করি’ (আধুনিক)-এর একটি সভায় অভিযান চালিয়ে ছাত্রশিবিরকর্মী সন্দেহে ৭৩ জনকে আটক করেছে পুলিশ। আটককৃতরা অধিকাংশই কুমিল্লা মেডিকেল কলেজের ছাত্র, ইন্টার্নি ডাক্তার ও ডাক্তার বলে জানা গেছে।

শুক্রবার রাত সাড়ে আটটায় নগরীর কুচাইতলী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সংলগ্ন সিটি কমিউনিটি সেন্টারে বৈঠক করার সময় তাদের আটক করে কোতোয়ালি মডেল থানা পুলিশ।

জানাযায়, রাত সাড়ে ৮ টায় সিটি কমিউনিটি সেন্টারে আধুনিক ক্লাব শাখার উদ্যোগে ডাক্তারদের রিসিপশন অনুষ্ঠানের আয়োজন করেন। অনুষ্ঠান চলাকালে কোতোয়ালি থানার সেকেন্ড অফিসার সালাউদ্দিনের নেতৃত্বে পুলিশের একাধিক টিম অনুষ্ঠানস্থলে পৌঁছে জামায়াত-শিবির নেতাকর্মী সন্দেহে প্রায় ৮০ জন মেডিকেল ছাত্র ও ইন্টার্নি ডাক্তারকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে। পরে রাত পৌনে ১১টায় যাচাই-বাছাই শেষে হিন্দু, উপজাতীয় ডাক্তার এবং সাধারণ শিক্ষার্থীদের বাদ দিয়ে ৭৩ জন শিবির নেতাকর্মীকে আটক দেখানো হয়।

কুমিল্লার এসএসপি সার্কেল জাহাঙ্গীর আলম এ খবর নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, নাশকতা ও সরকারবিরোধী গোপন বৈঠক থেকে পুলিশ তাদের আটক করেছে।

এদিকে ছাত্রশিবির কুমিল্লা মহানগর সভাপতি মনির আহমেদ আটকদের বিষয়ে বলেন, “আধুনিক একটি অরাজনৈতিক সংগঠন। পুলিশ উপজাতি ও ভিন্ন ধর্মের ছাত্র ও চিকিৎসকদের ছেড়ে দেয়ায় তা প্রমাণিত হয়েছে।”

মেধাবী মেডিকেল ছাত্র ও চিকিৎসকদের অবিলম্বে ছেড়ে দেয়ার আহ্বান জানিয়ে তিনি এ ঘটনার তীব্র নিন্দা জানান।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply