তিতাসে প্রতিদিন ১৫ ঘন্টা লোডশেডিং মেঘনায় গ্রেফতার আতংক

নাজমুল করিম ফারুক :–
কুমিল্লার তিতাসে প্রতিদিন ১৫ ঘন্টা লোডশেডিং হলেও মেঘনা উপজেলায় ভয়াবহ লোডশেডিংয়ের প্রতিবাদে বিদ্যুৎ অফিসে ভাংচুরের ঘটনায় মামলা হওয়ায় কুমিল্লা পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-১ এর গ্রাহকদের মধ্যে গ্রেফতার আতংক বিরাজ করছে।
খোঁজ নিয়ে জানা যায়, গত কয়েকদিন যাবৎ তিতাস ও মেঘনায় ভয়াবহ লোডশেডিং কবলে পড়ে সাধারণ গ্রাহক। অব্যাহত লোডশেডিংয়ের প্রতিবাদে মেঘনায় বিক্ষোভ মিছিল, সমাবেশ, বিদ্যুৎ অফিস ঘেরাও ও আসবাবপত্র ভাংচুর করে। উক্ত ঘটনায় অজ্ঞাতনামা ৩৫/৪০ জনকে আসামী করে মামলা হওয়ায় সাধারণ গ্রাহকদের মধ্যে গ্রেফতার আতংক বিরাজ করছে। অপরদিকে কয়েকদিন যাবৎ তিতাসে ঘন্টার পর ঘন্টা লোডশেডিং হচ্ছে। কোন কোন সময় লোডশেডিংয়ের মাত্রা ২-৩ পর্যন্ত বেড়ে যায়। আধা ঘন্টা বিদ্যুৎ সরবরাহ করলেও ফের চলে লোডশেডিং। ফলে ২৪ ঘন্টার মধ্যে ১৪-১৫ ঘন্টা বিদ্যুৎ পাচ্ছে না গ্রাহক। বিশেষ করে বৃহস্পতিবার উপজেলা পরিষদের সমন্বয় কমিটির রেজুলেশন লোডশেডিংয়ের কারণে ফটোকপি করতে না পারায় একঘন্টা বিলম্বে সভা অনুষ্ঠিত হয়।
মেঘনা থানার ওসি মোঃ নাছির উদ্দিন বলেন, মেঘনা বিদ্যুৎ অফিস ভাংচুরের ঘটনায় অজ্ঞাতনামা ৩৫/৪০ জনকে আসামী করে মামলা হয়েছে। তবে তদন্তের মাধ্যমে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। কুমিল্লা পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-১ এর গৌরীপুর-তিতাস জোনাল অফিসের ডিজিএম মোঃ শহিদ উল্লাহর ফোনে বার বার যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও মোবাইল রিসিভ করেনি। তবে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন কর্মকর্তা জানান, চাহিদার তুলনায় সরবরাহ কম হওয়ায় ঘাটতি মেটাতে লোডশেডিং করতে বাধ্য হচ্ছে বিদ্যুৎ বিভাগ।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply