বুড়িচং-ব্রাহ্মণপাড়ায় রাস্তার পাশে খোলা জায়গায় বিক্রি হচ্ছে ইফতার সামগ্রী

সৈয়দ আহাম্মদ লাভলুঃ–

কুমিল্লার বুড়িচং-ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলার বিভিন্ন বাজারে ও রাস্তার পাশে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে খোলা জায়গায় বিক্রি হচ্ছে ইফতার সামগ্রী, যা খেয়ে অসুস্থ্য হচ্ছে অনেক রোজাদার মুসুল্লীরা।
জানা যায়, কুমিল্লা থেকে বুড়িচং হয়ে ব্রাহ্মণপাড়া-মিরপুর সড়ক ও কুমিল্লা থেকে সংকুচাইল-শশীদল-বাগড়া সড়কের রাস্তার পাশে বিভিন্ন বাজারে দুপুর থেকেই বিভিন্ন ইফতার সামগ্রী টেবিলের উপর সাজিয়ে বসে ইফতার বিক্রেতারা। সারাদিন রোজা রাখার পর মুসুল্লীরা চায় পরিচ্ছন্ন পরিবেশে ভাল দেখে ইফতার সামগ্রী দিয়ে ইফতার করতে। ছনাভুট, আলুর চপ, বেগুনী, পেয়াজু, বুড়িন্দা, জিলাপী,মুড়ি, চিড়া ভাজা, হালিম, সবজি পেয়াজুসহ হরেক রকমের লোভনীয় ইফতার সামগ্রী ক্রয় করতে প্রতিটি দোকানের সামনে ভীর করছেন ধর্মপ্রান মুসুল্লীরা। সমস্যা হচ্ছে রাস্তার পাশে এসব ইফতার সামগ্রীর উপর কোন প্লাষ্টিক কাভার নেই। রোদ, বৃষ্টি, ধুলাবালী, মাছিসহ বিভিন্ন ময়লা এই ইফতার সামগ্রীতে মিশে তা খাবার অযোগ্য হয়ে পড়ে। ধর্মপ্রান মুসুল্লীরা একরকম নিরুপায় হয়েই এ ইফতার সামগ্রী ক্রয় করে থাকে। এব্যাপারে ব্রাহ্মণপাড়া স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ এমএ জাহের এ প্রতিনিধিকে বলেন, রাস্তার পাশে খোলা স্থানে ময়লাযুক্ত ইফতার সামগ্রী খেলে পেটের নানা রকমের অসুখ দেখা দিতে পারে। তার মধ্যে পাতলা পায়খানা ও ডায়রিয়া অন্যতম। এছাড়া গ্যাষ্টিক আলসারসহ অন্যান্য রোগেও আক্রান্ত হবার সম্ভাবনা আছে। সাহেবাবাদ ডিগ্রী কলেজের প্রভাষক ফখরুল ইসলাম বলেন, আমি ব্যক্তিগত ভাবে ইফতার বিক্রেতাদের কয়েকবার অনুরোদ করেছি, তারা যেন ইফতার সামগ্রীতে প্লাষ্টিক কভার ব্যাবহার করেন। কিন্তু তারা আমার কথায় কোন কর্ণপাত করেনি, যা আমাকে ব্যাথিত করেছে। এ ব্যাপারে ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ আজিজুর রহমানের দৃষ্টি আকর্ষন করা হলে তিনি এ প্রতিনিধিকে বলেন, রমজানের শুরুতে আমরা ব্যবসায়ীদের এ বিষয়গুলো সতর্ক করে দিয়েছিলাম। তারা সতর্ক না হয়ে থাকলে সল্প সময়ের মধ্যেই তাদের বিরোদ্ধে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে বিচারের ব্যবস্থা করা হবে।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply