নাঙ্গলকোটের পৌরশহরের সড়কগুলো ডোবায় পরিনত- জন-জীবনে নাভিশ্বাস!

আজিম উল্যাহ হানিফ:–

কুমিল্লার নাঙ্গলকোটের পৌরসভার সড়ক গুলোতে পৌরসভা প্রতিষ্ঠার লগ্ন থেকে গত ১২ বছরে তেমন কোন উন্নয়ন হয়নি। যারফলে পৌরশহরের বিভিন্ন এলাকায় বসবাসরত বাসিন্দাদের চলাচলে নাভিশ্বাস উঠেছে। নাগরিকদের উন্নত সুযোগ –সুবিধার কথা চিন্তা করে সরকার নাঙ্গলকোটকে ২০০১/২০০২ সালে পৌরসভা ঘোষনা করে। পরবতীর্তে তৎকালীন পৌরপ্রশাসক আলহাজ্ব নুরুল্লাহ মজুমদার নাঙ্গলকোট পৌরসভার মেয়র থাকাকালীন এটি ৪র্থ শ্রেনী থেকে ৩য় শ্রেণীর মযার্দা লাভ করে। মেয়র,কাউন্সিলর,কর্মকর্তা-কর্মচারীদের আরাম-আয়েশ এর জন্য ৩য় শ্রেনীর পৌরসভায় উন্নীত হওয়ায় কোটি টাকা ব্যায়ে নির্মিত হয় ্একটি নতুন ভবন। কিন্তু ৩য় শ্রেনীতে মর্যাদা লাভ করলেও চাহিদামাফিক উন্নয়ন হয়নি পৌর নাগরিকদের। ৩য় শ্রেনীর পৌরসভা হওয়ায় বিভিন্ন খাতে করও বেড়ে যায় একগুন। রাস্তাঘাট,ড্রেন,ও ডাস্টবিন গুলো পরিকল্পিত ভাবে নিমার্ন করা হয়নি। নাঙ্গলকোটের অধিকাংশ স্থানে ড্রেন নির্মাণ করা হলে ও ময়লা আবজর্নায় ভরে যাওয়া ড্রেন গুলো নিয়মিত পরিষ্কার করা হয়নি। প্রয়োজনের তুলনায় করা হয়নি ডাস্টবিনের ব্যবস্থা। ফলে ময়লা আবজর্না যার মনে যেমন লয় যেখানে সেখানে ফেলা হয়। প্রধান প্রধান সড়কের পাশে সড়ক থেকে ২-৩ ফুট উচুতে অপরিকল্পিত ভাবে ড্রেনেজ নিমার্ন করায় একটু বৃষ্টিতেই সড়কগুলো হাটু পানিতে নিমজ্জ্বিত হয়। এতে যান ও জন চলাচলের ভোগান্তির অন্ত নেই। এদিকে স্টিল ব্রীজ ,বেতাগাও,আতাকরা,শ্রীহাস্য ও নাওগোদা এলাকায় প্রতিনিয়ত দেখা দেয় কৃত্রিম বন্যা। অপরদিকে উপজেলা পরিষদ সড়ক, দক্ষিন দিকে ধাতীশ্বর,বাইপাস সড়ক,কোদালিয়া সড়ক, রেল স্টেশন সড়ক,ব্যাংক রোড,ধান বাজার, মর্ডাণ হসপিটাল সড়ক,চৌদ্দগ্রাম রোড, পুরাতন হসপিটাল রোড,মাহিনী স্কুল রোড সহ সব সড়কের জন্যই পানি নিস্কাশনের কোন প্রয়োজনীয় ও পরিকল্পিত ড্রেনেজ ব্যবস্থা নেই। পৌর শহরের পানি নিস্কাশনের ড্রেনগুলো এখন মাটি ও ময়লা আর্বজনীয় চাপা পড়ে বেদখল হয়ে পড়েছে। পৌরসভার সড়কগুলোর নাজুক অবস্থায় পৌরসভাবাসীর ভোগান্তি দিন দিন বেড়েই চলেছে। অতি সম্প্রতি মেয়র সামছুদ্দিন কালু পৌরবাসীদের সকল প্রকার উন্নয়ন বাস্তবায়ন করবেন বলে আমাদের প্রতিনিধি আজিম উল্যাহ হানিফকে জানিয়েছেন।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply