টেলিফিল্ম ব্যাড লাক

মহল্লার আদু ভাই শফিক। তিনবার ডিগ্রি ফেল করে এখন তার ধ্যান জ্ঞান নিবদ্ধ এলাকার সুন্দরী কলেজ গার্ল টিনির প্রতি। কিন্তু তার সমস্যা, টিনির সামনে দাঁড়ালে তার সবকিছু ওলট পালট হয়ে যায়। তাই টিনিকে প্রেমপত্র দিতে গিয়ে সেই প্রেমপত্র পড়ে যায় টিনির বান্ধবীর হাতে। বান্ধবীতো প্রেমপত্র পেয়ে মহাখুশি। তবে এই ভুল বোঝাবুঝিতে বিপাকে পড়ে শফিক। আদু ভাই হলেও তার মনটা ভীষণ নরম। তিনবার ফেল করার কারণে তার সহপাঠীরা তাকে পেছনে ফেলে জীবনের তাগিদে কোন না কোন কর্মস্থলে ঢুকে পড়েছে। তার সখ্যতা গড়ে উঠেছে জুনিয়র ছেলেদের সাথে। জুনিয়ররাও শফিককে পেয়ে যারপরনাই আনন্দিত। কারণ শফিক তাদের ভালোমন্দ খাওয়ায়, তার কাছ থেকে টাকা ধার নিলে আর দিতে হয় না বরং শফিক অন্যদের মোবাইলে ফ্রি ফ্লেক্সি লোড করে দেয়।
DSC_8785
জুনিয়র বন্ধুরা যখন আবিস্কার করে, তাদের আদু ভাই প্রেম রোগে আক্রান্ত তখন তারাও প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেয়। তাদের যথার্থ পরামর্শ ও প্রশিক্ষণ পেয়ে সে অবশেষে ঠিক করে, যেভাবেই হোক টিনিকে তার ভালোবাসার কথা বলবেই। কিন্তু টিনি তাকে ভালোবাসার জন্য তিনটা অদ্ভুত শর্ত দেয়। শফিক যদি এই তিনটা পরীক্ষায় পাশ করে তবেই সে শফিককে ভালোবাসবে। এদিকে শফিকের বাবাও ভীষণ কড়া লোক। ছেলেকে তালাবন্দি করে রাখেন, শর্ত সাপেক্ষে। যদি শফিক তার লাফাঙ্গা জুনিয়র বন্ধুদের সাথে আড্ডবাজি ছেড়ে বাবার কাপড়ের ব্যবসায় যোগ দেয় তবেই সে মুক্তি পাবে।
শফিক বাবার কাছে ডিগ্রি পরীক্ষা দেয়ার জন্য আর একটাবার সুযোগ চায়। বাবা রাজি হন। সে প্রাইভেট পড়তো তার জুনিয়র এক ইউনিভার্সিটি পড়–য়া ছাত্রের কাছে। সেই ছাত্রকে কানে ধরে ওঠবোস করিয়ে বিদায় দিয়েছিল। বাবা ও টিনির চাপে পড়ে সেই ছাত্রকে হাতে পায়ে ধরে আবার শুরু করে সে পড়াশোনা। এখানেই ঝামেলার শেষ নয়।

হাস্য রসাত্বক এই টেলিফিল্মটি রচনা করেছেন শফিকুর রহমান শান্তনু ও পরিচালনা করেছেন দীপু হাজরা। টেলিফিল্মটির বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেন ড. ইনামুল হক, হাসান মাসুদ, অহনা, মিরানা জামান, আরমিম রিজা, মরিয়ম সরকার, সারওয়ার বাপী প্রমুখ। টেলিফিল্মটি একুশে টেলিভিশনে শুক্রবার বিকাল ০৩:৩০ মিনিটে প্রচার হবে।

রচনা শফিকুর রহমান শান্তনু,পরিচালনা দীপু হাজরা

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply