ব্রা‏হ্মণপাড়ায় হরতাল সমর্থনে বিএনপির মিছিল

মিজানুর রহমান সরকার, ব্রা‏হ্মণপাড়া :–

রাজনৈতিক কর্মকান্ডে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের দাবী, নেতাকর্মীদের মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানীর প্রতিবাদ ও নির্দলীয় তত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন পদ্ধতি পুনর্বহালের দাবীতে ১৮ দলীয় জোটের ডাকা হরতালে ২৬মে রবিবার উপজেলা বিএনপির নেতাকর্মীরা হরতাল সমর্থনে মিছিল করেছে। সকাল থেকে উপজেলার সকল রাস্তায় সিএনজি, অটো রিক্সা সহ ছোট ছোট যানবাহন নির্বিঘেœ চলাচল করতে দেখা গেছে। অফিস আদালত ব্যাংক বীমা যথারীতি খোলা ছিল। বেলা ১১টায় উপজেলা বিএনপির সাংগঠনিক দায়িত্বে থাকা আমীর হোসেন ও থানা যুবদল সভাপতি শাহজাহান সাজুর নেতৃত্বে একটি মিছিল হরতাল সমর্থনে বিভিন্ন শ্লোগান নিয়ে উপজেলার প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে হাজী মার্কেটের সামনে এসে যুবদলের যুগ্ম সম্পাদক আবু ইউসুফ বাবুল এর পরিচালনায় উপজেলা বিএনপির সাংগঠনিক দায়িত্বে থাকা আমির হোসেনের সভাপতিত্বে আলোচনা সভা ও বিক্ষোভ সমাবেশের আয়োজন করে। এসময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা যুবদল সভাপতি শাহজাহান সাজু, বিএনপি নেতা তারু মিয়া, যুবদল নেতা মিজান, মজিবুর রহমান লিটন, স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা জামাল হোসেন। থানা ছাত্রদল আহবায়ক জাকির খাঁন স¤্রাট, যুগ্ম আহবায়ক ফারুক আহাম্মদ, তাজুল ইসলাম, শরাফ উদ্দিন, গোলাম কিবরিয়া অপু। ছাত্রনেতা মোহাম্মদ আলী, শামিম, সুমন আহাম্মদ, মহসিন, আমিন, সাজ্জাদ, কায়েস, বাবলু, ফারুক সরকার, আল আমি, আশিক, প্রমুখ। বক্তারা এসময় সরকারের গণতন্ত্রী বিরোধী কৃতকর্মের সমালোচনা করে অগণতান্ত্রিক ভাবে রাজনৈতিক কার্য্যকলাপের উপর নিষেধাজ্ঞা জারী করার তীব্র সমালোচনা করেন। তারা বলেন, আওয়ামী সরকার বাকশালে বিশ্বাসী তারা কথনো গণতন্ত্রে বিশ্বাসী নয়, বর্তমানে তারা অঘোষিত বাকশালী কায়দায় দেশ পরিচালনা করছে। একদিকে বিএনপিকে সংলাপের আহবান জানাচ্ছে, অপরদিকে নেতাকর্মীদের মিথ্যা মামলা দিয়ে আটক করে নির্যাতন করছে। শীর্ষ আওয়ামী নেতারা চতুর্মূখী কথা বলে মানুষকে বিভ্রান্তি করছে। একজন বিরোধীদলকে সংলাপের আহবান জানাচ্ছে, অপরজন কঠো কথা বলে তা ব্যাহত করছে। একজন নির্দলীয় তত্বাবধায়ক সরকারের মাধ্যমে নির্বাচন পরিচালনা করার মৌন সম্মতি জানিয়ে বক্তব্য দিচ্ছে, অপরজন তার বিরোধীতা করে বিরোধী দলতে কটাক্ষ করছে। গণতান্ত্রিক সরকার বিরোধী দলের সাথে অগণতান্ত্রিক আচড়ণ করছে। এতে দেশ সংঘাতের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। আমরা এর তীব্র নিন্দা জানিয়ে অনতিবিলম্বে রানৈতিক নিষেধাজ্ঞা তুলে নিয়ে, বিএনপির শীর্ষ নেতাদের মুক্তি দিয়ে নির্দলীয় নিরপেক্ষ তত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন পরিচালনা করার জোর দাবী জানান। এসময় তারা বিএনপির কেন্দ্রীয় ভাবে ঘোষিত সকল কার্য্যক্রম বুড়িচং ও ব্রাহ্মণপাড়া বিএনপির সাংঠনিক সমন্বয়ক জাতীয় প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি ও বিএনপি চেয়ারপারর্সন বেগম খালেদা জিয়ার উপদেষ্টা শওকত মাহমুদের নেতৃত্বে পালন করার দৃঢ় প্রত্যয় ব্যাক্ত করেন ।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply