মুরাদনগরে সড়কের মাঝখানে বৈদ্যুতিক খুঁটি

মোঃ মোশাররফ হোসেন মনির, মুরাদনগর(কুমিল্লা) :–

একটি বৈদ্যুতিক খুঁটি যেন সাক্ষাত জমদূত। রাতের অন্ধকারে অচেনা কোন পথচারী এ পথে চলতে গিয়ে হোঁচট খেয়ে হঠাৎ টাসকী লেগে মাতালের মতো মাথা ঘুরিয়ে পড়ে গেলেও অবাক হবে না কেউ। অথবা ধীর গতীর রিক্সা কিংবা সিএনজিসহ যে কোন ছোট-বড় যান ধাক্কা লেগে দুর্ঘটনায় পাতিত হয়ে যান-মালের ক্ষতি সাধত হওয়া অতি স্বাভাবিক ব্যাপার। এটি যেন কারো চিন্তার উদ্রেক করো নেই।
মুরাদনগর উপজেলার সদর ইউনিয়নের পাঁচকিত্তা সোনাউল্লাহ্ গ্রামের তিতাস-রামচন্দ্রপুর রাস্তার ঠিক মাঝ খানে ২২০ ভোল্টেজের বৈদ্যুতিক সঞ্চালন লাইন সংযোজিত খুঁটিটি দীর্ঘদিন থেকেই এই অঞ্চলের হাজার হাজার মানুষের দুর্ভোগের কারণ হয়ে দাড়িয়ে আছে। যেন চোখে আঙ্গুল দিয়ে দেখালেও দেখা যায় না।
স্থানীয় বাসিন্দারা আক্ষেপ করে বলেন, এর দায় শুধুই আমাদের! এটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি সড়ক। এই ব্যস্ততম সড়কটি মুরাদনগর উপজেলার রামচন্দ্রপুর বাজার ও ডুমুড়িয়া বাজার সপ্তাহে দু’দিন আশে পাশের কয়েকটি উপজেলার ব্যবসা বাণিজ্যের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছে। ব্যবসা বাণিজ্যে ব্যবহার করা পন্য পরিবহন ঢুকতে না পারার কারনে দিন-দিন মার খাচ্ছে কোটি কোটি টাকা লেনদেনের হাট দু’টি। ফলে ব্যবসায়ী সম্প্রদায়সহ জনসাধারন অপুরনিয় ক্ষতির মুখে পড়ছেন।
সোনাউল্লা গ্রামের উপর দিয়ে যাওয়া রাস্তার মাঝখানে অবস্থিত বৈদ্যুতিক খুঁটিটি অন্যত্র সরিয়ে অত্র অঞ্চলের জনসাধারনের অনাকাক্ষিত দুর্ঘটনা এরিয়ে নিরাপদ পারাপার এবং ব্যবসা বাণিজ্যে ব্যবহারের পন্যবাহী যান চলাচলের অবাধ সুযোগ সৃষ্টির লক্ষ্যে অচিরেই এই খুঁটিটি সরিয়ে নিতে কতৃপক্ষের নিকট জোর দাবি জানায় এলাকাবাসী।
এ ব্যপারে কুমিল্লার পল্লী বিদু্যুত সমিতির মুরাদনগরের অফিসার ডিজিএম মো: মহিউদ্দিন মোশাহেদুল্লাহ জানান, আমি লোক পাঠিয়ে খতিয়ে দেখে উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষেকে অবহিত করব। তারপর সিদ্ধান্ত অনুযায়ি অচিরেই ব্যবস্থা গ্রহণ করা এব।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply