কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে গৃহবধুকে পিটিয়ে হত্যা

সাইফুল ইসলাম,নাঙ্গলকোট:–
কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধু নাজমুন্নাহার মুক্তাকে (২৩) হত্যার পর লাশ ফ্যানের সাথে ঝুঁলিয়ে রেখে আত্মহত্যার প্রচারণা চালানোর অভিযোগ পাওয়া গেছে। লাশের মাথায় এবং শরীরের বিভিন্নস্থানে আঘাতের চিহৃ রয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার সকালে উপজেলার দৌলখাঁড় ইউপির দৌলখাঁড় তালেব মজুমদার বাড়িতে । সে উপজেলার জোড্ডা গ্রামের বেলাল হোসেনের মেয়ে। পুলিশ গতকাল মঙ্গলবার সকালে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতলে প্রেরণ করেছেন।
এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গত ৩বছর পূর্বে উপজেলার দৌলখাড় গ্রামের ফুল মিয়ার পুত্র হারুনুর রশিদের সাথে একই উপজেলার জোড্ডা গ্রামের বেলাল হোসেনের মেয়ে নাজমুন্নাহারের বিয়ে হয়। বিয়ের পর কামনরুন্নাহারের পরিবার তার স্বামীকে যৌতুক হিসেবে ১লাখ ২৫হাজার টাকা দিয়ে ১টি ডিসকভার মোটরসাইকেল,২ভরি স্বর্ণালংকার এবং আসবাবপত্র প্রদান করেন। দীর্ঘদিন থেকে নাজমুন্নাহারের স্বামী হারুনুর রশিদ তাকে আরো যৌতুক প্রদান করার জন্য চাপসৃষ্টি করে আসছিলেন। এদিকে, নাজমুন্নাহার গত ৩মাস পূর্বে বাপের বাড়ি জোড্ডা গিয়ে স্বর্ণের কানের দুল হারিয়ে ফেলেন। এনিয়ে নাজমুন্নাহারের সাথে তার স্বামী, শ্বশুড় এবং শ্বাশুড়ীর যৌতুক প্রদান এবং স্বর্ণের কানের দুল নিয়ে বিবাদ লেগেছিল। গতকাল মঙ্গলবার সকালে কামরুন্নাহারারের সাথে তার স্বামীর কথাকাটি হয়। এক পর্যায়ে স্বামী এবং পরিবারের লোকজন তার মাথায় দেশীয় অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে তাকে হত্যা করা হয়েছে বলে এলাকাবাসী জানান। পরে নাজমুন্নাহার মারা গেলে আত্মহত্যার প্রচারণা চালানোর জন্য ঘরের ফ্যানের সাথে তার লাশ ঝুলিয়ে রাখেন। গতকাল সকালে নাজমুন্নাহারের শ্বশুর ফুল মিয়া তার পিতা বেলালকে মোবাইল ফোনের মাধ্যমে তার মেয়ে আত্মাহত্যা করছে বলে জানান। নাজমুন্নাহারের ১৮মাস বয়সী সিমলা নামের একটি কন্যা সন্তান রয়েছে। সে ৭মাসের অন্তঃসত্ত্বা। নাজমুন্নাহারের স্বামী, শ্বশুড় এবং শ্বাশুড়ী পলাতক রয়েছে। নাঙ্গলকোট থানাার এস আই আরিফ জানান, লাশের মাথায় থেতলানো এবং গলায় দাগ রয়েছে। লাশের সুরতহাল রিপোর্ট তৈরী করে ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। দৌলখাঁড় ইউপি চেয়ারম্যান আবুল খায়ের জানান, বিভিন্নভাবে জানতে পারি, নাজমুন্নাহারকে মারধরের পর পরিকল্পিতভাবে হত্যা করে লাশ ফ্যানের সাথে ঝুঁলিয়ে রাখা হয়েছে। এব্যাপারে থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply