আত্মহত্যা নয়; হত্যা করা হয় স্কুল ছাত্র শাহরিয়ারকে

লাকসাম প্রতিনিধি:–
লাকসাম পৌরসভার মিশ্রি গ্রামে চাঞ্চল্যকর স্কুল ছাত্র শাহরিয়ার হত্যার বিষয়টি উন্মোচিত হয়েছে। এ বিষয়ে তার মা নার্গিস সুলতানা লাকসাম থানায় অপমৃত্যুর মামলা দায়ের করলেও পোস্টমর্টেম রিপোর্টে তা হত্যাকান্ড হিসেবে সনাক্ত করা হয়।
উল্লেখ্য, গত ১৭ই ফেব্রুয়ারি শাহরিয়ারের মায়ের পিত্রালয় মিশ্রি থেকে গলায় ফাঁস দেয়া অবস্থায় শাহরিয়ারের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।
পরবর্তীতে স্কুলছাত্র শাহরিয়ার হোসেন সুহৃদ হত্যাকারীদের বিচার দাবীতে বিভিন্ন স্কুলের ছাত্র-ছাত্রী, শিক্ষকসহ হাজারো এলাকাবাসী মানব বন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ করে। লাকসাম বাইপাসসহ কুমিল্লা- নোয়াখালী আঞ্চলিক মহাসড়কের চন্দনা বাজারে এ মানব বন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।
নিহতের চাচা এডভোকেট জাকির হোসেন জানান, ২০১১ সালে তার ভাই স্কুল শিক্ষক শাহ আলম সড়ক দুর্ঘটনায় নিহতের পর থেকে দু’সন্তান নিয়ে স্বামীহারা নার্গিস সুলতানা মিশ্রি এলাকায় বসবাস করেন। এ সময় সে পরকীয়ায় আসক্ত হয়ে পড়লে মা-ছেলের মাঝে প্রায় কথা কাটাকাটি হতো। শাহরিয়ার এ বিষয়গুলো চাচাদের জানাতো। এ বিষয়ে গত কিছুদিন আগে পারিবারিক দেন-দরবার হলে সে আরো ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে। এরই জের ধরে শাহরিয়ারকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করে লাশ ঝুলিয়ে রেখে আত্মহত্যার প্রচারনা চালানো হয়। নিহত শাহরিয়ার লাকসাম পাইলট হাইস্কুলে ৭ম শ্রেণীতে অধ্যয়নরত ছিলো। এ ঘটনায় লাকসাম থানায় হত্যা মামলা করতে গেলে পুলিশ মামলা নেয়নি। হত্যাকান্ডের ঘটনায় স্কুলছাত্রের চাচা এডভোকেট জাকির হোসেন বাদী হয়ে তার মা নার্গিস সুলতানা, নজরুল ইসলাম ও খসরু ওরফে ভুট্টুসহ অজ্ঞাতনামা আরো ২/৩ জনের বিরুদ্ধে কুমিল্লা আদালতে হত্যা মামলা (সিআর- ৮১/১৩) দায়ের করেন।
এ বিষয়ে লাকসাম থানার ওসি মোঃ আবুল খায়ের জানান, গত ১১ই এপ্রিল পোস্টমর্টেম রিপোর্ট পেয়েছি। রিপোর্টে বিষয়টি হত্যাকান্ড উল্লেখ রয়েছে। অপরাধীদের গ্রেপ্তারে তৎপরতা চলছে।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply