ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে ইউএনও’র অপসারণ দাবীতে মিছিল: মহান স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠান বর্জনসহ কঠোর কর্মসূচি ঘোষণা

Untitledআরিফুল ইসলাম সুমন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধিঃ—

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) অপসারণের দাবীতে বিক্ষোভ মিছিল-সমাবেশ হয়েছে। বৃহস্পতিবার আওয়ামীলীগের অঙ্গ-সংগঠন এবং এলাকাবাসী ইউএনও মোহাম্মদ আনিছুজ্জামানের বিরুদ্ধে এই কর্মসূচি পালন করে। আন্দোলনকারীদের দাবী সরাইলে যোগদানের পর থেকেই এই ইউএনও জামায়াত-শিবির ও বিএনপির সাথে আতাত করে প্রশাসন চালাচ্ছেন। উপজেলা সন্ত্রাস প্রতিরোধ কমিটিতে উপজেলা জামায়াতের আমীরসহ তিনজনের নাম অর্ন্তভূক্ত করেছেন। কৌশলে উপজেলা মুক্তিযোদ্ধাদেরকে দুই ভাগে বিভক্ত করে রেখেছেন।
জানা যায়, গত ১১ মার্চ সন্ত্রাস প্রতিরোধ ও স্বাধীনতা দিবস পালন প্রস্তুতি সভা বয়কট করেন স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধা, আ’লীগের অঙ্গ-সংগঠন ও স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানরা। বিতর্কিত ইউএনওর অপসারণ দাবী করে গতকার বৃহষ্পতিবার সকালে আওয়ামীলীগ ও অংগসংগঠনের নেতৃত্বে লোকজন সরাইল সদরে মিছিল নিয়ে উপজেলা চত্বরে প্রদক্ষিণ করে। উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি হাজী ইকবাল হোসেনের সভাপতিত্বে পথসভায় বক্তব্য রাখেন যুবলীগ নেতা কাজী আমিনুল ইসলাম শেলভী, মো. শের আলম, মো. হানিফ মিয়া, মো. কাইয়ুম ও শ্রমিক লীগ নেতা হানিফ। ইউএনওকে প্রত্যাহার করা না হলে স্বাধীনতা দিবসে উপজেলা প্রশাসনের সকল কর্মসূচি প্রত্যাখ্যানের ঘোষণাসহ লাগাতার আন্দোলন কর্মসূচি দেয়ার ঘোষণা দেয় বক্তারা।
জানতে চাওয়া হলে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ আনিছুজ্জামান খান জানান, ‘সরকারদলীয় লোকদের সাথে সমন্বয় করে আমি সবকিছু করছি। কিছু লোক আমার বিরুদ্ধে য়ড়যন্ত্র করছে।’ সন্ত্রাস প্রতিরোধ কমিটিতে জামায়াত নেতাদের নাম অন্তর্ভূক্ত করা, তাদের সাথে আতাঁত করে প্রশাসন চালানোর অভিযোগ তিনি অস্বীকার করেন।

Check Also

আশুগঞ্জে সাজাপ্রাপ্ত আসামির মরদেহ উদ্ধার

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি :– ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জে মো. হারুন মিয়া (৪৫) নামে দুই বছরের সাজাপ্রাপ্ত এক আসামির ...

Leave a Reply