ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইল উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রফিক উদ্দিন ঠাকুর সাময়িক বরখাস্ত

sarail pic 26-2-13স্টাফ রিপোর্টার, ব্রাহ্মণবাড়িয়াঃ—
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইল উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রফিক উদ্দিন ঠাকুরকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করা হয়েছে। তিনি সরাইল উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক। স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রনালয়ের সিনিয়র সহকারি সচিব মোঃ সবুর হোসেন এর গত ২৪ ফেব্রুয়ারিতে স্বাক্ষরিত পত্রে তাকে এ সাময়িক বরখাস্তের আদেশ দেওয়া হয়।
সূত্র জানায়, সরাইল উপজেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি এ.কে.এম ইকবাল আজাদ হত্যা মামলার দ্বিতীয় আসামি হিসেবে পুলিশের দেওয়া অভিযোগপত্র (চার্জশিট) আদালতে গৃহীত হওয়ায় তার বিরুদ্ধে এ প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। দলীয় সূত্রে জানা গেছে, গত ২১ অক্টোবর দলীয় কোন্দলের জের ধরে প্রকাশ্যে রাজপথে জনপ্রিয় নেতা ইকবাল আজাদকে হত্যা করা হয়। নিহতের ছোট ভাই ইঞ্জিনিয়ার এ.কে.এম জাহাঙ্গীর আজাদ বাদী হয়ে হত্যা মামলা দায়ের করেন। এ মামলায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল হালিম, সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রফিক উদ্দিন ঠাকুর, যুগ্ম সম্পাদক ও সদর ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল জব্বার, সাংগঠনিক সম্পাদক মাহফুজ আলীসহ ২৯ নেতা-কর্মীর বিরুদ্ধে পুলিশ আদালতে অভিযোগপত্র (চার্জশীট) দাখিল করে। অভিযোগপত্র আদালতে গৃহীত হয়। বর্তমানে রফিক উদ্দিন ঠাকুরসহ আওয়ামী লীগ নেতারা জেলহাজতে রয়েছেন। পুলিশ সূত্রে জানা যায়, রফিক উদ্দিন ঠাকুরের বিরুদ্ধে লিলু হত্যা এবং অস্ত্র আইনে মামলা রয়েছে। এ দুটি মামলা তদন্তাধীন আছে।
সরাইল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ আনিসুজ্জমান খান জানান, উপজেলা চেয়ারম্যানের সাময়িক বরখাস্তের চিঠি পাওয়া গেছে। পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ শাহজাহান মিয়া ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করছেন।
উল্লেখ্য, সম্প্রতি উপজেলা চেয়ারম্যান রফিক উদ্দিন ঠাকুরের সরকারি বাসার মালামাল ক্রোকের সময়ে পুলিশ বিছানার নিচ থেকে একটি বিদেশী রিভলবার উদ্ধার করে। ইকবাল আজাদ হত্যার ঘটনায় উত্তেজিত জনতা রফিক উদ্দিন ঠাকুরের উপজেলার কুট্টাপাড়া গ্রামের বাড়ির কয়েকটি ঘর, পোল্টি লেয়ার ফার্মসহ অভিযুক্ত অন্যান্য নেতাদের ঘর-বাড়ি আগুন ধরিয়ে পুড়িয়ে দিয়েছে।

Check Also

কুমিল্লায় তিন গৃহহীন নতুন ঘর পেল

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ– কুমিল্লা সদর উপজেলায় গ্রামীণ উন্নয়ন সংস্থার উদ্যোগে ৪নং আমড়াতলী ইউনিয়নের গৃহহীন নুরজাহান বেগম, ...

Leave a Reply