দাউদকান্দিতে এসিডসন্ত্রাসের শিকার ফারজানার দাফন সম্পন্ন: খুনীদের ফাঁসির দাবীতে এলাকায় বিক্ষোভ মিছিল: প্রধান আসামী সাদ্দম হোসেন’র আদালতে আত্মসমর্পন

দাউদকান্দি/ ৪ ডিসেম্বর (কুমিল্লাওয়েব ডটকম)———
প্রেমের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করায় এসিড সন্ত্রাসের শিকার দাউদকান্দি উপজেলার সোনাকান্দা ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন ইসলামিয়া রহমানিয়া দাখিল মাদ্রাসার নবম শ্রেণীর ছাত্রী ফারজানা আক্তারের লাশ মঙ্গলবার সকাল দশটায় নিজ গ্রামে দাফন সম্পন্ন হয়।
গত বাইশ দিন মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্ছা লড়ে অবশেষে গত ৩ ডিসেম্বর সোমবার সকলকে কাঁদিয়ে পরপারে চলে যাওয়া ফারজানার লাশ আজ সকালে ঢাকা থেকে এলাকায় আনার পর অগনিত মানুষ ভিড় করে তার বাড়িতে। ফারজানাকে শেষ বারের মত একটি বার দেখতে পুরুষদের পাশাপাশি হাজার হাজার নারী ও শিশু উপস্থিতি হয় ওইখানে।
হাজার হাজার মানুষ তার জানাজায় অংশগ্রহণ করে এবং দাফন শেষে খুুনীদের ফাঁসির দাবীতে দাউদকান্দি-মতলব সড়কে বিক্ষোভ মিছিল করে। জানাজায় উপজেলা প্রশাসন, পুলিশ প্রশাসন, মানবাধিকার সংগঠন, শিক্ষক, সাংবাদিক, চেয়ারম্যান ও সর্বস্তরের মানুষ অংশ গ্রহণ করেন। জানাজায় দাউদকান্দি উপজেলাসহ আশেপাশের উপজেলা থেকেও বিভিন্ন শ্্েরণীর লোকজন অংশ নেয়।
ফারজানার পরিবার ও এলাকাবাসীর জোর দাবি, মূল আসামীসহ সকল আসামীদের যেন ফাঁসি দেয় সরকার। উল্লেখ্য, প্রেমের প্রস্তাবে রাজি না হত্তয়ায় গত ১১ নভেম্বর ভোররাতে দাউদকান্দি উপজেলার পদুয়ার ইউনিয়নের সোনাকান্দা গ্রামে মাদ্রাসার ছাত্রী ফারজানা আক্তার (১৫), তার বোনের ছেলে পঞ্চম শ্রেণীর ছাত্র ফয়সাল মাহমুদ (১০) এবং কাজের মেয়ে খাদিজা আক্তারকে (১৭) ঘুমন্ত অবস্থায় দাউদকান্দি উপজেলার গোয়ালমারী ইউনিয়নের জামালকান্দি গ্রামের কালু মিয়ার পুত্র বখাটে সাদ্দাম হোসেন (২২) ও দেলোয়ার হোসেনসহ বখাটেরা এসিড নিক্ষেপ করে।
এদিকে এসিড নিক্ষেপ করে মাদ্রাসা ছাত্রী ফারজানা হত্যামামলার প্রধান আসামী সাদ্দম হোসেন অবশেষে মঙ্গলবার আদালতে আত্মসমর্পন করেছে।

শামীমা সুলতানা
দাউদকান্দি,কুমিল্লা।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply