আগামী নির্বাচনে সুফল পেতে সংগঠনকে শক্তিশালী করুন——–এয়ার ভাইস মার্শাল (অব:) এম. রফিকুল ইসলাম

মতলব উত্তর / ২৬ নভেম্বর (কুমিল্লাওয়েব ডটকম)———
মতলব উত্তর উপজেলার জনপ্রতিনিধি, আওয়ামীলীগ ও সহযোগি সংগঠনের নেতৃবৃন্দের সাথে চাঁদপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য এয়ার ভাইস মার্শাল (অব:) এম. রফিকুল ইসলাম মতবিনিমিয় সভা করেছেন। সরকারের উন্নয়ন কর্মকান্ড প্রচার, ডিসেম্বরে কাউন্সিলকে প্রধান্য দিয়ে সভায় আলোচনা করা হয়।
সোমবার মতলব উত্তর উপজেলা পরিষদ সভাকক্ষে মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন, চাঁদপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য এয়ার ভাইস মার্শাল (অব:) এম. রফিকুল ইসলাম।
উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক এমএ কুদ্দুসের পরিচালনায় মতবিনিময় সভায় বক্তব্য রাখেন, মতলব উত্তর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ মিজানুর রহমান, আওয়ামীলীগের জাতীয় পরিষদ সদস্য এটিএম রিয়াজ উদ্দিন মানিক, উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি সফিকুল ইসলাম পাটোয়ারী, সিরাজুল ইসলাম লস্কর, উপজেলা পরিষদ ভাইস চেয়ারম্যান আইয়ূব আলী গাজী, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ শাহজাহান প্রধান, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিবিষয়ক সম্পাদক মামুনুর রশিদ, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি দেওয়ান জহির, সাধারন সম্পাদক কাজী শরীফ, জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি প্রভাষক মোঃ সেলিম মিয়া প্রমূখ।

মতবিনিময় সভায় ইউপি চেয়ারম্যান সমিতির পক্ষে বক্তব্য রাখেন, কলাকান্দা ইউপি চেয়ারম্যান গোলাম কাদির মোল্যা, ফতেপুর পশ্চিম ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক্ব খাজা আহমেদ, ফতেপুর পূর্ব ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি গোলাম নবী বাদল, কলাকান্দা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি এটিএম মজিবুর রহমান, ইসলামাবাদ ইউনিয়ন আওয়ালীগের সভাপতি অমৃত নাথ নাগ, দুর্গাপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি আসাদুজ্জামান, বাগানবাড়ী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি আঃ লতিফ, সুলতানাবাদ ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক আবুল বাশার খোকন, সাদুল্যাপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি হাজী শাহজাহান সরকার, গজরা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি মোঃ ছানাউল্যাহ মোল্যা, এখলাছপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক রেহান উদ্দিন নেতা, জহিরাবাদ ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক জালালউদ্দিন কবিরাজ, গজরা ইউনিয়ন যুবলীগের আহবায়ক মোঃ ওয়াদুদ, সুলতানাবাদ ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি আঃ কাদির জিলানী প্রমূখ।

মতবিনিময় সভায় বক্তারা বলেন, আওয়ামীলীগ কোন ছোট দল নয়, বড় দলে বেশি নেতা-কর্মী পাওয়া না পাওয়া থাকবেই। আগামী নির্বাচনে কে প্রার্থী হবে সেটা ঠিক করবেন আওয়ামীলীগের নীতিনির্ধারকরা। কে মনোনয়ন পাবে সেই কথা ভুলে দলকে সংগঠিত করতে হবে। সকল ভেদাভেদ ভুলে তৃনমূল পর্যায় থেকে দলকে সংগঠিত করতে হবে। দল সংগঠিত হলেই আওয়ামীলীগের প্রার্থীর জয় হবে। আওয়ামীলীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর বিরোধী দলের কোন নেতা-কর্মীর উপর নির্যাতন নিপীরন করা হয়নি। সহ অবস্থান করার পরিবেশ তৈরি করা হয়েছে। আগামী নির্বাচনে আওয়ামীলীগ বিজয়ী হতে না পারলে দেশে এক অরাজকতা সৃষ্টি হবে।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply