প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় গতবারের মতো কোন অনিয়ম পরিলক্ষিত হলে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে :তিতাস উপজেলা চেয়ারম্যান

নাজমুল করিম ফারুক, তিতাস :

তিতাস উপজেলা চেয়ারম্যান পারভেজ হোসেন সরকার গতবছর ইসলামাবাদ প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে শিশু শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে নকল উদ্ধার করে কেন্দ্রে বসে থাকা শিক্ষকদের দেখাচ্ছেন।
গত বছরের মতো এ বছরও যদি প্রাথমিক ও এবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় কোন অনিয়ম ধরা পরে বা পাসের হার বাড়াতে ক্ষুদে শিক্ষার্থীদের হাতে নকল তুলে দেয়া হয় তাহলে সংশ্লিষ্ট সকলের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে কুমিল্লাওয়েব তিতাস প্রতিনিধির সাথে সাক্ষাৎকালে তিতাস উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান পারভেজ হোসেন সরকার একথা বলেন। তিনি আরো বলেন, গত বছরের ঘটনাগুলো থেকে আমাদের শিক্ষা নিতে হবে বিশেষ করে অধিকাংশ শিক্ষক নেতা তাদের নিজস্ব বিদ্যালয়ের পাসের হার বাড়াতে যে পন্থা অবলম্বন করেন তা শিক্ষার পরিবেশের জন্য একদিন হুমকি হয়ে দাঁড়াবে। অসৎ পথ অবলম্বন করে আমাদের জেলা পর্যায়ে প্রথম হওয়ার দরকার নেই। প্রকৃত শিক্ষা দিয়ে শিশুদেরকে গড়ে তোলতে হবে। তিনি আরো বলেন, গতবছর যে সব কেন্দ্রে নকলের অস্তিত্ব পাওয়া গেছে সে সব কেন্দ্রের কেন্দ্র সচিবকে ইতিমধ্যে অন্যত্র দায়িত্ব দেওয়ার জন্য উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারকে বলা হয়েছে। শিক্ষক নেতাদের স্কুল সহ যেসব স্কুলে অনিয়ম হতে পারে সেসব স্কুলে মনিটরিং করার জন্য উপজেলা পরিষদের পক্ষ থেকে জনপ্রতিনিধিদের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। বিশেষ করে কেন্দ্রে যাদের দায়িত্ব দেওয়া হয়নি তারা প্রবেশ করতে পারবে না, করতে তাদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেয়া হবে। তিনি দুঃখের সাথে বলেন বর্তমানে অনুষ্ঠিত জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার কেন্দ্রগুলোতেও নকল চলছে। একটি কেন্দ্রে আমি প্রবেশ করে তার প্রমাণও পেয়েছি।

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস সূত্রে জানা যায়, এ বছর প্রাথমিক ও এবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় উপজেলার ১৫টি কেন্দ্র থেকে প্রাথমিক শাখায় ৩১৪৯ জন ও এবতেদায়ী শাখায় ৪৪৬ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করবে। আগামী ২৩-৩০ নভেম্বর থেকে প্রাথমিক ও এবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

Check Also

কুমিল্লায় তিন গৃহহীন নতুন ঘর পেল

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ– কুমিল্লা সদর উপজেলায় গ্রামীণ উন্নয়ন সংস্থার উদ্যোগে ৪নং আমড়াতলী ইউনিয়নের গৃহহীন নুরজাহান বেগম, ...

Leave a Reply