ভূয়া ডাক্তার আব্দুল ওহাবের কান্ড

জামাল উদ্দিন স্বপন:

লাকসাম রেলওয়ে জংশনের লোক সেডের পশ্চিম পাশে কুমিল্লা নোয়াখালী বাইপাস রোডের পূর্ব পাশে অশ্ব ভোগন্দর ক্লিনিক সত্যাধীকারী ভূয়া ডাক্তার আব্দুল ওহাব। দীর্ঘদিন থেকে নিজ নামের পাশে ডাঃ শব্দটি ব্যবহার করে সাধারন মানুষকে প্রতারিত করে আসছে। প্রকৃতপক্ষে প্রাতিষ্ঠানিক কোন শিক্ষা ও স্বাক্ষর জ্ঞানও তার নেই। নিজেকে ডাক্তার পরিচয় দিয়ে সাধারন রোগী থেকে চিকিৎসার নামে পঁচিশ/ত্রিশ হাজার টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে। সরকারী কোন অনুমোদন ছাড়াই ক্লিনিক ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে দীর্ঘদিন থেকে। একশ্রেণীর বখাটে লোকদেরকে হাত করে তার শক্তি হিসেবে ব্যবহার করে আসছে। প্রতিবেদক তার ক্লিনিকের বৈধতা সম্পর্কে জানতে চাইলে জানায় আমার বৈধ অবৈধ এবিষয়ে আপনার জানার দরকার নেই।

আপনি এখানে কি উদ্দেশ্যে এসেছেন তা সরাসরি বলেন। আমার বাবা ও দাদার আমল থেকে এই চিকিৎসা দিয়ে আসছি, কোন সার্টিফিকেটের দরকার নেই। এটাই আমার বড় সার্টিফিকেট। ভূয়া ডাক্তার ওহাব যে সকল ঔষধ ব্যবহার করছে, প্রথমত এসিড গাছের লতাপাতা বেটে পেষ্ট করে মলদ্বারে লাগায় যা পচনক্রিয়া সৃষ্টি করে। যে সকল ফার্মাসিটিকেলস ঔষধ ব্যবহার করছে ইনজেকশন, সেফট্রিয়াকসন ২ গ্রাম, উচ্চ ব্যথানাশক কিটোরোলাক ৬০ এম.জি, সেফিক্সিম ক্যাপসুল, সেপরাড ইত্যাদি ঔষধ প্রয়োগ করছে যা একজন রেজিষ্ট্রার্ড ডাক্তার ব্যাতীত কেউই এই পরামর্শ দেওয়ার বৈধতা নেই। এই ক্রিয়ায় চিকিৎসা নিলে রোগীদের ক্যান্সার হওয়ার সম্ভাবনা শতভাগ। তার এসকল কর্মকান্ডে দেশের চিকিৎসা সেবায় নিয়োজিত ডাক্তারগন বিশেষভাবে মানসম্মান হেয় প্রতিপন্ন হচ্ছে। এ বিষয়ে মতামত পোষন করেন কুমিল্লার সিভিল সার্জন ডাঃ আবুল কালাম আজাদ অভিযোগটি তদন্তপূর্বক যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহন করব।

Check Also

লাকসাম-মনোহরগঞ্জের বিএনপি’র সাবেক এমপি আলমগীরের জাতীয় পার্টিতে যোগদান

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ– কুমিল্লা-১০ (লাকসাম-মনোহরগঞ্জ) বিএনপি’র সাবেক এমপি এটিএম আলমগীর জাতীয় পার্টিতে যোগদান করেছেন। সোমবার জাতীয় ...

Leave a Reply