দুর্নীতিবাজ রাজনীতিবিদ ও আমলাদের কারণে সমবায়ীরা বঞ্চিত -এড. জিয়াউল হক মৃধা এমপি

সরাইল (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি ॥

জাতীয় পার্টির কেন্দ্রিয় ভাইস চেয়ারম্যান ও ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট জিয়াউল হক মৃধা বলেছেন, পাকিস্তান আমলে সরাইলে সমবায়ের কার্যক্রম শুরু হয়। এর উদ্যোক্তা ড. আখতার হামিদ খাঁন। শুরুর দিকে এখানকার সমবায়ীদের অবস্থা ভাল ছিল। পরবর্তী সময়ে দূর্নীতিবাজ রাজনীতিবীদ ও একশ্রেণীর কায়েমি স্বার্থবাদী আমলারা পকেট কমিটি করে প্রকৃত সমবায়ীদের দূরে সরিয়ে রেখেছেন। আমি নিজেও একটি সমবায় সমিতির সদস্য হতে চেয়েছিলাম। কিন্তু একটি মহল সমিতির রেজিষ্টার খাতার পাতা ছিঁড়ে ফেলে আমাকে সদস্য হতে দেয়নি। আভ্যন্তরীন দূর্নীতির কারণেই সরাইলের সমবায়ীরা সামনের দিকে অগ্রসর হতে পারছে না। সরাইল উপজেলায় একটি বাড়ি একটি খামার প্রকল্পে সুফলভোগীর তালিকায় বিত্তশালীদের নাম অন্তভূক্ত করা হয়েছে। প্রকল্পের গরু ও ঢেউটিন নিয়ে যাচ্ছে কিছু বিত্তশালীরা।

গতকাল শনিবার জাতীয় সমবায় দিবস উপলক্ষ্যে সরাইল উপজেলা পরিষদ চত্বরে পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মেলা ২০১১ উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। এর আগে উপজেলা সমবায় অফিস কর্তৃক আয়োজিত র‌্যালিতে নেতৃত্ব দেন এম পি। পরে প্রধান অতিথি মেলায় বিভিন্ন স্টল ঘুরে দেখেন। উপজেলা সমবায় অফিসার গোলাম মহিউদ্দিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন-কেন্দ্রিয় সমবায় সমিতির ভাইস চেয়ারম্যান মো. মুজিবুর রহমান, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মাহমুদা পারভীন, বিআরডিবি কর্মকর্তা মরিয়ম দিলসাদ মনি, মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা নিরুপা ভৌমিক, উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক হাজী মাহফুজ আলী প্রমূখ।

প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে আরো বলেন, আজকের এই অনুষ্ঠানে যে ধরনের প্রাণচাঞ্চল্য প্রয়োজন ছিল, সেটা এখানে পরিলক্ষিত হচ্ছে না। এ জন্য কাকে দায়ী করব বুঝে পাচ্ছি না। বঙ্গবন্ধু বলেছিলেন জাল যার, জলা তার। কিন্তু কিছু স্বার্থপর বিত্তশালী রাতারাতি নিজেকে বদলিয়ে জেলে সেজে যান। ভাবতে অবাক লাগে। এ কাজে সহযোগিতা করে যাচ্ছেন কিছু দুর্নীতিবাজ আমলা।

Check Also

আশুগঞ্জে সাজাপ্রাপ্ত আসামির মরদেহ উদ্ধার

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি :– ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জে মো. হারুন মিয়া (৪৫) নামে দুই বছরের সাজাপ্রাপ্ত এক আসামির ...

Leave a Reply