সরাইলে ইউএনও কর্তৃক দশম শ্রেণীর এক ছাত্রকে আটক ও নির্যাতনের ঘটনায় তোলপাড় চলছে

সরাইল (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) সংবাদদাতা ॥
গতকাল সকালে সরাইল উপজেলায় জেএসসি পরীক্ষা চলাকালে নকলে সহযোগিতার প্রস্তুতি নিচ্ছে এমন সন্দেহে দশম শ্রেণীর এক ছাত্রকে আটক করে নির্যাতন চালায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় অভিভাবক, শিক্ষার্থী ও শিক্ষকমহলে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়লে বিকেলে চাপের মুখে ওই ছাত্রকে মুছলেকা নিয়ে ছেড়ে দিতে বাধ্য হন তিনি। শাহবাজপুর বহু মুখী উচ্চ বিদ্যালয়ে ঘটনাটি ঘটার পর ওই বিদ্যালয়ের খোদ প্রধান শিক্ষক মোহাম্মদ আলী ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, আটককৃত ছেলেটি আমার বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণীর মেধাবী ছাত্র। সকালে প্রাইভেট পড়া শেষে বিদ্যালয়ের (পরীক্ষা কেন্দ্র) সীমানা প্রাচীরের বাইরে সে বসা ছিল। নির্বাহী কর্মকর্তা নকলের সহযোগিতার সন্দেহে ছাত্রটিকে আটক করে। পরে তার ওপর শারীরিক নির্যাতন চালানো হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও এলাকাবাসী জানান, মঙ্গলবার সকাল ১১টার দিকে পরীক্ষা কেন্দ্রে আসেন নির্বাহী কর্মকর্তা। এসময় পরীক্ষা কেন্দ্রের বিদ্যালয়ের সীমানা প্রাচীরের বাইরে স্থানীয় প্রাথমিক বিদ্যালয়ের একটি পরিত্যক্ত কক্ষে দশম শ্রেণীর ছাত্র আবুবক্কর (১৫)সহ ৩-৪ জন ছাত্র বসে গল্প করছিল। হঠাৎ নির্বাহী কর্মকর্তা ছাত্রদের সন্দেহ করে তেড়ে আসেন। অন্য ছাত্ররা দৌঁড় দিলেও আবুবক্কর দাঁড়িয়ে থাকে। পরীক্ষা কেন্দ্রের দায়িত্বরত পুলিশের সহযোগিতায় আবুবক্করকে উত্তম-মধ্যম দিয়ে আটক করে ইউএনও’র দপ্তরে নিয়ে আসেন। এ ঘটনায় স্থানীয়ভাবে তোলপাড় শুরু হয়। সচেতন মহলে চলে আলোচনা-সমালোচনা। ঘটনাটি জানানো হয় খোদ স্থানীয় সংসদ সদস্য ও জেলা প্রশাসককে। বিকেলে তীব্র চাপের মুখে ছাত্রটিকে ছেড়ে দিতে বাধ্য হন নির্বাহী কর্মকর্তা। এ প্রসঙ্গে শাহবাজপুর বহু মুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের ব্যবস্থাপনা পরির্ষদের সভাপতি ও আ’লীগ নেতা মো. খায়রুল হুদা চৌধুরী বাদল বলেন, আমার বিদ্যালয়ের মেধাবী ওই ছাত্রটিকে সম্পূর্ণ বেআইনি ও অন্যায়ভাবে আটক করে মারধোর করেছেন ইউএনও। এটা কোন ভাবেই আমরা সহজভাবে মেনে নিতে পারি না। পরীক্ষার আগে কোন ধরনের নোটিশ বা মাইকিং করানো হয়নি।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবু সাফায়াত মোহাম্মদ শাহেদুল ইসলাম বলেন, মোবাইল কোর্ট অথবা কোন জরিমানা ছাড়াই নোয়াগাঁও ইউপি চেয়ারম্যানের কাছে আটক ওই ছাত্রটিকে বুঝিয়ে দেয়া হয়েছে।

Check Also

আশুগঞ্জে সাজাপ্রাপ্ত আসামির মরদেহ উদ্ধার

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি :– ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জে মো. হারুন মিয়া (৪৫) নামে দুই বছরের সাজাপ্রাপ্ত এক আসামির ...

Leave a Reply