সরাইলে মাদকাসক্ত পুত্রকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে দিলেন পিতা

লিটন চৌধুরী.ব্রাহ্মণবাড়িয়া :
সরাইলে মাদকাসক্ত পুত্রের অত্যাচার নির্যাতন সইতে না পেরে অবশেষে বুধবার সকালে ভ্রাম্যমাণ আদালতে সোপর্দ করলেন পিতা। আদালত মাদকাসক্ত কবির ঠাকুর (৪০) কে ২ বছরের কারাদন্ড দিয়েছেন। বিষয়টি এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করেছে।

উপজেলা প্রশাসন সূত্রে জানা যায়, সরাইল সদর ইউনিয়নের বড় দেওয়ান পাড়া গ্রামের বাসিন্দা মো. আতাবর ঠাকুর (৬৫)। তার চার ছেলের মধ্যে কবির তৃতীয়। তিন সন্তানের জনক কবির দীর্ঘ দিন যাবৎ মাদকাসক্ত। মাদক সেবক করে সে মা-বাবা, স্ত্রী-সন্তানদের প্রায়ই মারধর করে আসছে। মাদকের টাকার জন্য বৃদ্ধ পিতাকে চাপ সৃষ্টি করত। তার অত্যাচার নির্যাতনে পুরো পরিবারে সব সময় আতঙ্ক বিরাজ করত। বুধবার সকালে কবির যথারীতি মাদক সেবন করে বাড়িতে ফিরে বয়োবৃদ্ধ পিতাকে মারধর সহ ঘরের আসবাবপত্র ভাংচুর করতে থাকে। এসময় প্রতিবেশীদের সহযোগিতায় পিতা আতাবর হোসেন বাধ্য হয়ে নিজ পুত্রকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে সোপর্দ করেন।

নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. মুনিরুজ্জামান মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের ৯(১) ধারায় অভিযুক্ত কবিরকে ২ বছরের কারাদন্ড প্রদান করে জেলহাজতে পাঠিয়েছেন। কবিরের অসহায় পিতা আতাবর ঠাকুর জানান, মাদকাসক্ত ছেলের অত্যাচারে তাকে পুলিশের সাহায্যে আদালতে সোপর্দ করেছি। আমি তার উপযুক্ত বিচার দাবি করছি।




Check Also

কুমিল্লায় তিন গৃহহীন নতুন ঘর পেল

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ– কুমিল্লা সদর উপজেলায় গ্রামীণ উন্নয়ন সংস্থার উদ্যোগে ৪নং আমড়াতলী ইউনিয়নের গৃহহীন নুরজাহান বেগম, ...

Leave a Reply