হাফেজ আবদুল আলিমকে বাঁচাতে এগিয়ে আসুন

জামাল উদ্দিন স্বপন :

কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামের বাতিসা ইউনিয়নের দৈয়ারা নুরানী হাফেজীয়া মাদ্রাসার হেফজ বিভাগের ছাত্র মোঃ আবদুল আলিম বাপ্পিকে বাঁচাতে এগিয়ে আসুন। সে একই ইউনিয়নের সোনাপুর গ্রামের আবদুল হালিম প্রকাশ জামাই হালিমের জ্যৈষ্ঠ্য পুত্র।

তার পারিবারিক সুত্র জানায়, বিগত এক বছর পূর্বে পাশ্ববর্তী দেবীপুর গ্রামে ফুটবল খেলতে গেলে বুকে প্রচন্ড আঘাত পায়। ওই সময় ব্যথা তেমন অনুভব না হলেও বিগত ২০/২২ দিন ধরে বুকে প্রচন্ড ব্যথা অনুভব করে। গত ১০ দিন আগে কুমিল্লা মেডিকেল সেন্টার হাসপাতালের চিকিৎসক আবদুর রবের তত্ত্বাবধানে প্রায় এক সপ্তাহ ধরে চিকিৎসা চললেও তার শারিরীক কোন উন্নতি হয়নি। ডাক্তার জানান, তার বুকের বাম পাশে ও কিডনীর পাশে প্রচন্ড জখম হওয়ায় রক্ত জমাট বাধে। এজন্য তাকে এক সপ্তাহের মধ্যে অপারেশন ও ৫/৬ ব্যাগ রক্ত দিতে হবে। তার চিকিৎসায় প্রায় লক্ষাধিক টাকা ব্যয় হবে বলে ডাক্তার জানান। বাপ্পির পিতা আবদুল হালিম একজন দিন মুজুর হলেও অত্যন্ত পরহেজগার হিসেবে এলাকায় পরিচিত। তার পক্ষে ছেলের চিকিৎসার জন্য এত টাকা যোগাড় করা কিছুতেই সম্ভব নয়। বর্তমানে বাপ্পি মুমুর্ষ অবস্থায় বাড়িতে বিনা চিকিৎসায় কাতরাচ্ছে।

তাকে সাহায্য পাঠানো ঠিকানা ঃ

আবদুল মান্নান মজুঃ

হিসাব নং- ঞ- ৭৬০

জনতা ব্যাংক, চৌদ্দগ্রাম শাখা।

মোবাইল ঃ ০১৮১৯-১৬৮৯৩০

০১৮১৮-৬৮৭১৬৬




Check Also

কুমিল্লায় তিন গৃহহীন নতুন ঘর পেল

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ– কুমিল্লা সদর উপজেলায় গ্রামীণ উন্নয়ন সংস্থার উদ্যোগে ৪নং আমড়াতলী ইউনিয়নের গৃহহীন নুরজাহান বেগম, ...

Leave a Reply