আমরা মহাজোটে আছি, মহাজোটকে সাহায্য করতে চাই- কুমিল্লায় এরশাদ

ইমতিয়াজ আহমেদ জিতু,কুমিল্লাঃ :

আমরা মহাজোটে আছি, মহাজোটকে সাহায্য করতে চাই,কিন্তু তারা আমাদের কথা শোনেনা। তাদের কাছে আমরা মূল্যহীন। আমরা মহাজোটে গেছি মানুষকে ভালোবেসে,মানুষের মঙ্গল সাধনের জন্য,মানুষের দুঃখ-কষ্ট লাঘব করার জন্য,কিন্তু আমাদের আশা পূরণ হয়নি। তারা আমাদের কথাকে প্রাধান্য দেয়না। আমরা এইজন্য মহাজোটে যাইনি। দেশ এখন সংকটময় মুর্হূতের মধ্য দিয়ে ধাবিত হচ্ছে। গ্যাস নেই,পানি নেই,বিদ্যুৎ নেই,শেয়ারবাজারে ব্যাপক দরপতনে লক্ষ মানুষ আজ পথে বসেছে,আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতির চরম অবনতি হচ্ছে। এই অবস্থার জন্য তো মহাজোটে যাইনি। মহাজোটে গিয়েছিলাম দেশকে দলীয়করণের হাত থেকে মুক্ত করতে,বিগত সরকারের দুর্নীতি থেকে দেশের মানুষকে রক্ষা করতে, কিন্তু কিছুই করতে পারিনি। রাষ্ট্রপতি থাকাকালে আমি জেলা থেকে জেলায় গিয়েছি,মানুষের দুঃখ নিবারণ করার জন্য কাজ করেছি। আজ আমি রাষ্ট্রপতিও না, আর মানুষের কাছেও যেতে পারছিনা আর তাদের সেবা করতেও পারছিনা। আজ আমার সার্মথ্য নেই। গতকাল বুধবার কুমিল্লা টাউনহল ময়দানে বিকেল সাড়ে ৪টায় জাতীয় পার্টির মহা সমাবেশে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও সাবেক রাষ্ট্রপতি পল্লীবন্ধু হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ এইসব কথা বলেন।

উক্ত সমাবেশে জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় প্রেসিডিয়াম সদস্য সাবেক প্রধানমন্ত্রী কাজী জাফর আহমেদের সভাপতি বিশেষ অতিথি হিসেবে আরো বক্তব্য প্রদান করেন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেষ সরকারের বেসামরিক বিমান ও পর্যটন মন্ত্রী,জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় প্রেসিডিয়াম সদস্য জিএম কাদের, জাতীয় পার্টির মহাসচিব ও সাবেক মন্ত্রী এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদার এমপি, জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় ভাইস-চেয়ারম্যান ও জাতীয় পার্টির কুমিল্লা (দক্ষিণ)জেলা আহবায়ক এয়ার আহমেদ সেলিম, জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগাঠনিক সম্পাদক ও জাতীয় পার্টির কুমিল্লা (দক্ষিণ)জেলা সদস্য সচিব এইচ.এন.এম শফিকুর রহমানসহ আরো অনেকে।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে সাবেক রাষ্ট্রপতি পল্লীবন্ধু হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ আরো বলেন,আমি রাস্তা,পুল, উপজেলা করেছি। আমি আপনাদের সাহায্য চাই । আমার জাতীয় পার্টিকে শক্তিশালী করুন। দিনের পর দিন জাতীয় পার্টি সংগঠিত হচ্ছে। কর্মীরা আপনার শক্তি সংগ্রহ করুন,মহাজোটের প্রার্থীরাই আসবে হাত মেলাতে। আপনাদের কথা দিচ্ছি আমরা আপনাদের দুঃখ-কষ্ট লাঘব করবো,বেদনা দূর করবো। জনগণ আজোও বলে তারা আমার আমলে ভালো ছিল,আমার সময়ে টেন্ডারবাজি ছিলনা,দ্রব্যমূল্যের উর্ধ্বগতি ছিলনা,কোন ছিনতাই,সন্ত্রাসী ছিলনা,জনগণের মধ্যে কোন ভয় ছিলনা। আপনারা জাতীয় পার্টির সাথে থাকুন। আমাদের হাতকে শক্তিশালী করুন।

মহাজোট সরকারকে বলতে চাই,আপনার উপজেলা চেয়ারম্যানদেরকে ক্ষমতা দিন,জনগণের প্রতিনিধিত্ব করার সুযোগ দিন,তারা যেন জনগণের জন্য ভালোভাবে কাজ করতে পারে।

আজ ২৪ বছর পর কুমিল্লায় এসেছি। মনে অনেক ব্যথা,দুঃখ ছিল। আজ আপনাদের ভালবাসায় গত ২৪ বছরে কুমিল্লায় না আসতে পারার সব দুঃখ ভুলে গেছি আমি। আপনাদের ভালোবাসা নিয়ে আজ আমি যাচ্ছি। এই জেলাকে খুব ভালবাসি। আমার সামরিক জীবনের শুরু এ কুমিল্লা জেলা থেকে। ১৯৫৩ সালে সেকেন্ড ল্যাফটেনেন্ট পদে আমি এখান হতে সামরিক জীবন শুরু করি। এতদিনে কুমিল্লার অনেক পরিবর্তন হয়েছে। কিন্তু কুমিল্লার মানুষের দুঃখ-কষ্ট আজোও লাঘব হয়নি। আজ এখানে অনেক মা-ভাই-বোন এসেছেন। আপনারা জানেন,আমি উপজেলা চেয়েছি,তারা আমার চলে যাওয়ার পর উপজেলা নিশ্চিহৃ করে দিল। আমি ৬ বছর জেলে ছিলাম। তারা আমার পার্টি এবং আমাকে নিশ্চিহৃ করে ফেলার চেষ্টা করেছিল। কিন্তু জনগণ যাদের ভালবাসে তাদের শেষ করা যায়না। তাই আজও আমি আছি আপনার দোয়া ও ভালবাসায়্ । কুমিল্লার অনেক ঐতিহ্য। কুমিল্লাই হওয়া উচিত এদেশের রাজধানী। আমি চাই কুমিল্লা আরো প্রসিদ্ধ হবে,সবকিছুর মূল হবে এ কুমিল্লা। আনার যদি আমাকে সত্যিই ভালবাসেন আগামী পৌর নির্বাচনে কুমিল্লায় জাতীয় পার্টির প্রার্থী এয়ার আহমেদ সেলিমকে আপনার জয়ী করবেন। আমি আবার আসবো আপনাদের মাঝে।




Check Also

দেবিদ্বারে অগ্নিকান্ডে ১কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি

দেবিদ্বার প্রতিনিধিঃ– কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার ফতেহাবাদ ইউনিয়নের জগন্নাথপুর গ্রামে রান্না ঘরের গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরনে ১৫টি ...

Leave a Reply