কুমিল্লায় অভিনব কায়দায় প্রতারণা: আটক ২

এস জে উজ্জ্বল :
মঙ্গলবার কুমিল্লার পশ্চিম কালিয়াজুরি থেকে অভিনব কায়দায় গৃহিনীর গায়ের সোনার গহনা নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় ধরা পড়ে প্রতারক চক্রের দুই প্রতারক।

জানা যায় , আইনজীবি সহকারী শফিকুল ইসলামের বাড়ির নিচতলায় দুই দিন পূর্বে ইব্রাহিম ও মোনা নামে এক দম্পতি পাঁচশত টাকা অগ্রিম দিয়ে বাসা ভাড়া নেয়। মঙ্গলবার সকালে প্রতারক ইব্রাহিম ও তার স্ত্রী মাছ ও ফল নিয়ে বাড়ির গৃহিনী খেরশেদা বেগমের কাছে এসে চাচা মারা যাবার ছুতায় নিজ বাসায় রান্না করা যাবেনা বলে বাড়ির মালিকের এখানে রান্না করতে আসে । কিছু সময় পর তারা খোরশেদা বেগমকে বলে, আপনার সোনার চেইন কালো হয়ে গেছে, এর কিছু সময় পর বলে আমার কাছে দেন পরিস্কার করে দেই। মোনা নিজ হাতে তিন ভরি ওজনের সোনার চেইন ও কানের দুল নিজ হাতে খুলে নেয়। পরে সবুজ রংয়ের তরল পদার্থে চুবিয়ে রাখে। কিছু সময় পর ঐ তরল সহ পাত্রটি খোরশেদা বেগমকে ফেরত দিয়ে বলে দশ মিনিট পর খুলে পানি দিয়ে ধুয়ে নিবেন। কিছু সময় পর আর তাদের খুঁজে না পেয়ে ঐ পাত্রটি খুলে সোনার চেইন না পেয়ে বুঝতে পারে তারা চেইন সহ পালিয়েছে । বাড়ির নিচ তলার ভাড়াটিয়া নুরজাহান বেগম চিৎকার করে রাস্তায় নেমে এলে প্রতিবেশীরা প্রতারকদের সি এন জি এর পেছন পেছন ধাওয়া করে ধরে ফেলে। সহযোগী দুই প্রতারক পালিয়ে যেতে সক্ষম হলেও জনতার হাতে ধরা পড়ে ইব্রাহিম ও মনোয়ারা বেগম মোনা। তাদের কাছে থাকা সবুজ রংয়ের তরল সহ কৌটা থেকে সোনার চেইন ও কানের দুল উদ্ধার করে। জনতার প্রহার শেষে কোতয়ালি থানার পুলিশ তাদেরকে গ্রেফতার করে নিয়ে যায়। আটককৃতদের বাড়ি কুমিলার হোমনা উপজেলার নিলখী বলে তারা জানায়।




Check Also

দেবিদ্বারে অগ্নিকান্ডে ১কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি

দেবিদ্বার প্রতিনিধিঃ– কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার ফতেহাবাদ ইউনিয়নের জগন্নাথপুর গ্রামে রান্না ঘরের গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরনে ১৫টি ...

Leave a Reply