হরতালে মিথ্যা সংবাদ পরিবেশন করায় মুরাদনগর আ’লীগের সংবাদ সম্মেলন

স্টাফ রিপোর্টার, মুরাদনগর :

মিথ্যা সংবাদ প্রকাশ করায় গত বুধবার দুপুরে মুরাদনগর উপজেলা আওয়ামীলীগ কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করে প্রতিবাদ জানিয়েছেন উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দ
বুধবার দুপুরে মুরাদনগর উপজেলা আওয়ামীলীগ কার্যালয়ে উপজেলা আওয়ামীলীগ সাংবাদিক সম্মেলন করেছে। সম্প্রতি কতিপয় স্থানীয় ও জাতীয় দৈনিক পত্রিকায় প্রকাশিত যথাক্রমে “মুরাদনগরে বি.এন.পির কার্যালয় ভাংচুর, অগ্নিসংযোগ ও হরতাল বিরোধী মিছিলকারীদের হামলায় মঞ্চ ও তোরন ভাংচুর, পুলিশ সহ আহত ৩২ ” শীর্ষক সংবাদ গুলোর প্রতিবাদে সাংবাদিক সম্মেলন করা হয়। সাংবাদিক সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি ও উপজেলা চেয়ারম্যান হারুন আল রশিদ। জানা যায়, গত ৬,৭ ও ৮ ফেব্রুয়ারী মুরাদনগর উপজেলা আওয়ামীলীগ, যুব লীগ, ছাত্র লীগ, কৃষক লীগ ও আওয়ামীলীগের অন্যান্য সংগঠনের নেতৃবৃন্দকে জড়িয়ে যে অসত্য খবর প্রকাশিত হয়েছে তা সম্পূর্ণ মিথ্যা, বানোয়াট, ভিত্তিহীন ও উদ্দেশ্য প্রনোদিত বলে উল্লেখ করা হয়েছে। মুরাদ নগর উপজেলা আওয়ামীলীগ ও তার অঙ্গ সংগঠনের নেতৃবৃন্দরা গত ৭ ই ফেব্রুয়ারী সোমবার বি.এন.পি’র ইস্যু বিহীন ডাকা হরতালের বিপক্ষে শান্তিপূর্ণ ভাবে উপজেলা সদরে মিছিল বের করায়, স্থানিয় বি.এন. পি নেতাকর্মী ও স্থানীয় সাংসদ কায়কোবাদ এম পির চিহ্নিত সন্ত্রাসীরা উপজেলার হোমনা রোডের আল মদিনা হোটেলের সামনে দেশীয় অস্ত্র-সস্ত্র, দা-লাঠি, ইট পটকেল ও ককটেল নিয়ে অবস্থান করে। ওই ক্যাডাররা রাস্তার উপর গাছ, টেবিল, বেঞ্চ ও ড্রাম দিয়ে জনচলাচলের প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করে। খবর পেয়ে মুরাদনগর থানা পুলিশের একটি দল ঘটনা স্থলে পৌছা মাত্র ওই ক্যাডাররা পুলিশকে সহ স্থানীয় আওয়ামীলীগ নেতাকর্মীদের লক্ষ্য করে বৃষ্টির মত ইট পাটকেল নিক্ষেপ করে। এতে পুলিশ সহ অন্তত ৩২ জন আওয়ামীলীগের নেতা কর্মী আহত হয়। ওই ঘটনায় মুরাদনগর থানার এস.আই. মঞ্জুর কাদের বাদী হয়ে রোববার রাতে ৩/৪’শ লোককে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেন। মামলা (নং ৮ তারিখ ০৬/০২/ ২০১১) ইং। অথচ এ সত্য ঘটনাকে আড়াল করে এক শ্রেণীর হলুদ সাংবাদিকরা মিথ্যা তথ্য দিয়ে কতিপয় পত্রিকায় অসত্য সংবাদ প্রকাশ করেছে। সন্ত্রাসের উর্বর ক্ষেত্র মুরাদনগরের নিরিহ মানুষ ও আওয়ামীলীগ নেতাকর্মীরা এখনো স্থানীয় সাংসদ কায়কোবাদ ও তার বাহীনীর হাতে জিম্মি। তারা নির্জাতনে শিকার হয়েও মুখ খুলতে পারছেন না জানালেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি সৈয়দ আহাম্মদ হোসেন আউয়াল। সাংবাদিক সম্মেলনে উপস্থিতি ছিলেন বঙ্গবন্ধু হত্যা মামলার স্বাক্ষী যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা করপোরাল (অব:) আবদুল মতিন চৌধুরী, মুক্তিযোদ্ধা তারু মিয়া, উপজেলা আওয়ামীলীগ যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বাবু স্বপন কুমার সাহা ও সাবেক ভি.পি. হেলাল উদ্দিন মজনু, কুমিল্লা উত্তর জেলা কৃষক লীগের সাধারণ সম্পাদক পার্থ সারথী দত্ত, উপজেলা মহিলালীগ সভানেত্রী সাহিন আক্তার মায়া, উপজেলা ওলামা লীগ সভাপতি হাফেজ সুয়াইবুল হোসেন শাহজাহান মুন্সী, উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি সৈয়দ রাজীব আহাম্মেদ, দারোরা ইউপি সাবেক চেয়ারম্যান বাবু সঞ্জিত কুমার দাস গুপ্ত বলাই মাষ্টার, দারোরা ইউপি আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক জহিরুল হক, নবীপুর ইউপি সাবেক চেয়ানম্যান কামাল উদ্দিন, যুবলীগ নেতা শাহজাহান, জাকির ও আবুল প্রমুখ। সাংবাদিক সম্মেলনে মুরাদনগরে কর্মরত প্রায় সব পত্রিকার প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।





Check Also

দেবিদ্বারের সাবেক চেয়ারম্যান করোনা আক্রান্ত হয়ে ঢাকায় মৃত্যু: কঠোর নিরাপত্তায় গ্রামের বাড়িতে লাশ দাফন

দেবিদ্বার প্রতিনিধিঃ কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার ভাণী ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল হান্নান (৫৫) করোনায় আক্রান্ত ...

Leave a Reply