অ্যানথাক্স আতংক এখনো কাটেনি: মুরাদনগরে এক কৃষক সর্বশান্ত

স্টাফ রিপোর্টার, মুরাদনগর
সারাদেশ ব্যাপী অ্যানথাক্সের প্রকোপ কমে আসলেও মুরাদনগরে হঠাৎ করে আবার অ্যানথাক্সের আবির্ভাব ঘটেছে। উপজেলার মেটংঘর গ্রামের এক কৃষকের ৬টি দুগ্ধজাত গাভীর মধ্যে ৪টি অ্যানথাক্সে আক্্রান্ত হয়ে মারা গেছে।
জানা যায়, ওই গ্রামের আব্দুল মান্নানের ছেলে কৃষক আব্দুল কুদ্দুসের দুগ্ধজাত ৬টি গাভী অ্যানথাক্সে আক্রান্ত হলে স্থানীয় ডাক্তার দিয়ে চিকিৎসা দেয়া হয়। এর মধ্যে গত বুধবার চিকিৎসাধীন অবস্থায় ২টি ও তার পর দিন বৃহস্পতিবার আরো ২টি দুগ্ধজাত গাভীসহ মোট ৪টি গাভী মারা যায়। বর্তমানে ওই কৃষকের আরো ১টি গাভীর অবস্থা আশংকাজনক। এতে তার প্রায় ৩ লাখ টাকার য়তি হয়েছে বলে কৃষক আব্দুল কুদ্দুস সাংবাদিকদের জানিয়েছেন। এ ঘটনার খবর পেয়ে উপজেলা ভেটেরেনারী সার্জন সৈয়দ নজরুল ইসলাম ঘটনাস্থলে যান।
কৃষক আব্দুল কুদ্দুসের আয়ের একমাত্র উৎস দুগ্ধজাত গাভীগুলো হারিয়ে সে এখন দিশেহারা। সরকারি সহায়তা না পেলে তার পরিবারের পে এ দুরাবস্তা কাটিয়ে উঠা সম্ভব নয় বলে জানিয়েছে এলাকাবাসী। বর্তমানে কৃষক আব্দুল কুদ্দুসের পরিবার মানবেতর জীবন যাপন করছে।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...