জামায়াতের শীর্ষস্থানীয় নেতা মুহাম্মদ কামারুজ্জামান আব্দুল কাদের মোল্লাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ


ঢাকা, ১৩ জুলাই ২০১০ (কুমিল্লাওয়েব ডটকম) :
দুই ঘণ্টার ব্যবধানে জামায়াতের দুই শীর্ষস্থানীয় নেতাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। একটি গণহত্যা মামলায় জামায়াতের সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল মুহাম্মদ কামারুজ্জামান ও আব্দুল কাদের মোল্লাকে গ্রেপ্তার করা হয়। মঙ্গলবার দুটি মামলায় হাইকোর্টে জামিন নিতে এসে আদালত থেকে ফেরার পথে পৃথক মামলায় বিকালের দিকে এ দুই জামায়াত নেতাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।
পুলিশ জানায়, মুক্তিযুদ্ধের সময় গণহত্যার অভিযোগে পল্লবী থানায় দায়ের করা একটি মামলায় দুই জামায়াত নেতাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। প্রসঙ্গত, মুক্তিযুদ্ধের সময় মিরপুরের আলোকদী গ্রামে গণহত্যার অভিযোগে জামায়াতের শীর্ষস্থানীয় নেতাদের বিরুদ্ধে ২০০৮ সালের জানুয়ারিতে মামলাটি দায়ের করা হয়।
পুলিশের কাজে বাধা দেয়ার অভিযোগে শাহবাগ ও মুক্তিযোদ্ধা হত্যার অভিযোগে কেরানিগঞ্জ থানায় দায়ের করা দুটি মামলায় মঙ্গলবার দুই নেতা জামিনের জন্য হাইকোর্টে রিট আবেদন করেন। শুনানি শেষে বিচারপতি আফজাল হোসেন আহমেদ এবং বিচারপতি মো. আবদুল হাফিজের সমন্বয়ে গঠিত ডিভিশন বেঞ্চ ওই রিটের শুনানি নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত তাদের গ্রেপ্তার কিংবা হয়রানি না করার নির্দেশ দেয়।আদালতে এ বিষয়ে আগামীকাল বুধবার শুনানির দিন ধার্য করেছে। এ সময়ের মধ্যে আদালত এসব মামলায় তাকে গ্রেপ্তার বা কোনো রকম হয়রানি না করতে নির্দেশ দেয় পুলিশকে।
রিট আবেদনের কার্যক্রম শেষে বিকাল ৪টার দিকে আব্দুল কাদের মোল্লা হাইকোর্ট থেকে বেরিয়ে আসার সময় গেইটে তাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এ সময় গ্রেপ্তার এড়াতে ব্যক্তিগত আইনজীবী ব্যারিস্টার আবদুর রাজ্জাকের চেম্বারে অবস্থান নেন অপর নেতা কামারুজ্জামান। পরে গোয়েন্দা পুলিশের সদস্যরা বিকাল ৬টার দিকে তাকে গ্রেপ্তার করে। গ্রেপ্তারের পর জামায়াতের শীর্ষস্থানীয় এ দুই নেতাকে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) কার্যালয়ে নিয়ে যাওয়া হয়।

Check Also

মিনি ওয়াক-ইন-সেন্টারের মাধ্যমে রবি’র গ্রাহক সেবা সম্প্রসারণ

ঢাকা :– গ্রাহক সেবাকে সর্বাধিক গুরুত্ব দিয়ে মোবাইলফোন অপারেটর রবি আজিয়াটা লিমিটেড সম্প্রতি মিনি ওয়াক ...

Leave a Reply