সরকার রাজনীতিবিদদের দমননীতিতে মনোযোগি হয়ে পড়েছে : এম শামসুল ইসলাম


ঢাকা, ০৯ জুলাই ২০১০ (কুমিল্লাওয়েব ডটকম) :
বর্তমান সরকার দেশের জনগণের সেবায় মনোযোগি না হয়ে প্রতিপক্ষ রাজনীতিবিদদের দমননীতিতে মনোযোগি হয়ে পড়েছে। শুক্রবার জাতীয় প্রেসক্লাবে ভিআইপি লাউঞ্জে সেন্টার ফর ডেমোক্রেসি এন্ড পিস স্টাডিজ এর উদ্যোগে গ্রফতার ও রিমান্ড আতঙ্ক: বাংলাদেশ পরিপ্রেক্ষিত” শীর্ষক গোলটেবিল আলোচনায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে সাবেক তথ্যমন্ত্রী ও বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য এম শামসুল ইসলাম এ কথা বলেন। তিনি বলেন, বিগত ৫০ বছরের ইতিহাসের মধ্যে আওয়ামী লীগ সরকার যেভাবে সংবাদপএ ও সংবাদ কর্মীদের চাকুরীচ্যুত করা ছাড়াও পএিকা বন্ধ করে দিয়েছে অন্য কোন সরকার তা করেননি। নতুন যোগ হয়েছে টেলিভিশন কর্মীদের এবং টেলিভিশন বন্ধ করা। অর্থাৎ যখনই আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় এসেছে তখনই দেশে খাদ্য দ্রব্যের উর্ধ্বগতি, সন্ত্রাসী কর্মকান্ড বৃদ্ধি পেয়েছে। আওয়ামী লীগের সন্ত্রাসী কর্মকান্ড এখন শিক্ষাঙ্গনকে গ্রাস করে ফেলেছে।জাগপার সভাপতি শেখ শওকত হোসেন নিলু বলেন, বর্তমান সরকার রাজনীতিবিদদের গ্রেফতার রিমান্ডের নামে যেভাবে নির্যাতন করছে এর পরিনাম শুভ হবে না। জনগণ যদি এর প্রতিবাদে রাস্তায় বাইরে আসে আওয়ামী লীগের সরকার ও নেতারা পালানোর সুযোগ পাবে না। বিএফইউজের সভাপতি রুহুল আমিন গাজী বলেন সাংবাদিক ও সংবাগপএের ওপর আর কোন নির্যাতন সহ্য করা হবে না। অনতিলম্বে আমার দেশ পএিকার সংবাদ প্রকাশনসহ সংবাদকর্মীদের কর্মস্থলে ফিরে যাওয়া বাধা প্রত্যাহারের দাবি করেন। তিনি কারাবন্ধী মাহমুদুর রহমানের নিঃশর্ত মুক্তির দাবি করেন। সেই সাথে সংবাদকর্মীরা সংবাদপএে সত্য ঘটনা তুলে আনবে, সত্য প্রকাশ করাই তাদের দায়িত্ব। তিনি বলেন আইনের শাসন প্রতিষ্টা,গণতন্ত্র,বাকস্বাধীনতার জন্য সংবাদকর্মীরা লড়বে। দৈনিক নয়া দিগন্তের সম্পাদক ও কলামিষ্ট আলমগীর মহিউদ্দিন সভাপতিত্বে আরো বক্তব্য রাখেন কবি আব্দুল হাই সিকদার বলেন বর্তমান সরকার রাজনৈতিকভাবে প্রতিহত না করে বিরোধী দলের এবং সংবাদকর্মী ইনঞ্জিয়ার সম্পাদক মাহমুদুর রহমানকে গ্রেফতার রিমান্ডের মাধ্যমে মানুযের অধিকার প্রতিহত করার চেস্টা করছে। সরকার শর্তক না হলে দূর্বার আন্দোলন গড়ে তোলা হবে। এনপিপির সভাপতি শেখ শওকত হোসেন নীলু বলেন রাজনীতিবিদরা কখনো গ্রেফতারকে ভয়পেত না। কিন্তু এসরকার রাজনীতিবিদসহ সম্পাদক মাহমুদুর রহমানকে রিমান্ডে নিয়ে যে বর্বরোচিত অমানুযিক নির্যাতন করছে যা অতিতে কখনো আর করা হয়নি। কলামিস্ট সাদেক খান, প্রফেসর ড: আবু আহমেদসহ দেশের খ্যাতিমান পেশাজীবি ও আইনজীবিরা।

Check Also

মিনি ওয়াক-ইন-সেন্টারের মাধ্যমে রবি’র গ্রাহক সেবা সম্প্রসারণ

ঢাকা :– গ্রাহক সেবাকে সর্বাধিক গুরুত্ব দিয়ে মোবাইলফোন অপারেটর রবি আজিয়াটা লিমিটেড সম্প্রতি মিনি ওয়াক ...

Leave a Reply