এক মুসলিম শিক্ষার্থীকে স্কুলে নামাজ পড়ার অনুমতি দেয়নি জার্মান আদালত


ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক, ২৪ জুন (কুমিল্লাওয়েব ডট কম) :
স্কুলে নামাজ পড়ার অনুমতির জন্য জার্মান আদালতে গিয়ে প্রত্যাখ্যাত হন ১৬ বছর বয়সী এক মুসলিম শিক্ষার্থী। বৃহস্পতিবার বার্লিনের একটি আপিল আদালত ইউনুস নামের ওই মুসলিম শিক্ষার্থীর আবেদন খারিজ করে দেয়।
আদালত জানায়, নামাজ আদায়ের ফলে স্কুলের শান্তিপূর্ণ পরিবেশের বিঘ্ন ঘটতে পারে। শিক্ষার্থীদের শান্তি ও শিক্ষার পরিবেশের অধিকারের বিঘ্ন ঘটাতে পারে। এক্ষেত্রে স্কুলে পড়াশোনার পরিবেশ নিশ্চিত করার বিষয়টি ওই শিক্ষার্থীর ধর্ম পালনের অধিকারের চেয়ে গুরুত্ব পেয়েছে।
রায় ঘোষণার পর স্কুলের পরিচালক ব্রিগিট্টে বারচারট বলেন, ‘দিনটি বার্লিন স্কুলের জন্য আনন্দের।’ এ রায় স্কুলে বিদ্বেষপূর্ণ পরিবেশ সৃষ্টির সম্ভাব্যতা হ্রাস করেছে বলেও মন্তব্য করেন স্কুলের পরিচালক।‘ইসলামী অনুশাসনের প্রতিবাদী বৈশিষ্ট্য রয়েছে এবং এটি সামাজিক নিয়ন্ত্রক হিসাবে কাজ করে’ মন্তব্য করে বার্লিন সিনেটের এক কর্মকর্তা এই রায়ের প্রতি সমর্থন জানান।
জার্মান দৈনিক দার স্পিগেলে প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়, এ রায় দেশটিতে বসবাসরত প্রায় ৪০ লাখ মুসলিমের নামাজ আদায়ের ক্ষেত্রে বড় ধরনের চাপ সৃষ্টি করেছে।
এক বছর আগে জার্মানির একটি আদালত ওই মুসলিম শিক্ষার্থীকে দিনে একবার নামাজ আদায়ের অনুমতি দিলেও আপিল আদালত তা থেকে সরে আসে।
সূত্র: প্রেস টিভি

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...

Leave a Reply