এশিয়া কাপের উদ্বোধনী খেলায় পাকিস্তানের হার


জুন ১৬,২০১০ (কুমিল্লাওয়েব ডট কম) :
এশিয়া কাপের উদ্বোধনী খেলায় শ্রীলঙ্কা ১৬ রানে হারিয়েছে পাকিস্তানকে। ডাম্বুলার রঙ্গগিরি মাঠে টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে মাহেলা জয়াবর্ধনে ও অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউসের অর্ধশতকের সুবাদে ২৪২ রান করে শ্রীলঙ্কা, ৯ উইকেটে। জবাবে অধিনায়ক শহিদ আফ্রিদির ঝড়ো শতকের পরও পাকিস্তানের ইনিংস গুটিয়ে যায় ২২৬ রানে। পুরো ৫০ ওভারও খেলতে পারেনি তারা, খেলেছে ৪৭ ওভার। জেতার জন্য ২৪৩ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমেই ধাক্কা খায় পাকিস্তান। স্কোর বোর্ডে কোনো রান জমা হওয়ার আগেই সাজঘরে ফিরে যান উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান সালমান বাট। ১১ রানের মাথায় উমর আমিন বিদায় নিলে খাদের একেবারে কিনারায় চলে যায় পাকিস্তান।
এরপর ৩২ রানের মধ্যে শাহজীব হাসান ও শোয়েব মালিক ফিরে গেলে খাদেই পড়ে যায় পাকিস্তান। এ অবস্থায় হাল ধরে দলকে টেনে তোলার চেষ্টা করেন অধিনায়ক শহিদ আফ্রিদি। দলকে প্রায় টেনেই তুলেছিলেন তিনি। এমনকি, জয়েরও স্বপ্ন দেখছিল পাকিস্তান। কিন্তু আফ্রিদি সাজঘরে ফিরে গেলে তাসের ঘরের মত ভেঙ্গে পড়ে তাদের ইনিংস। আফ্রিদি ১০৯ রান করেন মাত্র ৭৬ বলে। তিনি তার ইনিংসটি সাজান আটটি চার ও সাতটি ছক্কা দিয়ে। ল্যাসিথ মালিঙ্গা পাঁচ উইকেট নেন, ৩৪ রানে। অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস ৩৮ রানে নেন ২ উইকেট।
এর আগে ব্যাট করতে নেমে ৩৬ রানে ২ উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়ে শ্রীলঙ্কা। কিন্তু দলকে টেনে তোলেন অধিনায়ক কুমার সাঙ্গাকারা ও মাহেলা জয়াবর্ধনে। সাঙ্গাকারা ৪২ ও জয়াবর্ধনে ৫৪ রান করেন। এছাড়া শেষ দিকে ম্যাথিউস অপরাজিত ৫৫ রান করলে লড়াই করার মতো পূঁজি পায় শ্রীলঙ্কা। ম্যাচ সেরা হয়েছেন শহিদ আফ্রিদি।
বাংলদেশ ও ভারত মুখোমুখি হবে বুধবার।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...