কোপেনহেগেন চুক্তির যে খসড়া তৈরি করেছে তাকে ‘ত্রুটিপূর্ণ’ অভিহিত করেছেন জি-৭৭ এর চেয়ারম্যান

কুমিল্লাওয়েব ডেস্ক :
জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবেলায় যুক্তরাষ্ট্র, চীন, ভারতসহ ২৮ টি দেশ কোপেনহেগেন চুক্তির যে খসড়া তৈরি করেছে তাকে ‘ত্রুটিপূর্ণ’ বলে অভিহিত করেছেন দরিদ্র দেশগুলোর গ্রুপ জি-৭৭ এর চেয়ারম্যান লুমুম্বা ডি আপিং।
প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা সমঝোতার কথা ঘোষণার কয়েক ঘন্টা পর বাংলাদেশ সময় শনিবার ভোর সোয়া ছয়টার দিকে এক সংবাদ সম্মেলনে লুমুম্বা বলেন, “আজ চরম লংঘনের ঘটনা ঘটলো। যা গরিবদের বিরুদ্ধে, স্বচ্ছতার ঐতিহ্যের পরিপন্থী। সুদান কখনো এমন কোন চুক্তিতে সই করবে না যা আফ্রিকাকে ধ্বংস করে দেবে। এই চুক্তি গরিব দেশগুলোকে আরও খারাপ পরিস্থিতিতে ফেলবে।” চুক্তির খসড়ার ত্রুটি সম্পর্কে জি-৭৭ চেয়ারম্যান বলেন, প্রথম ত্রুটি হলো গড় তাপমাত্রা ২ ডিগ্রি সেলসিয়াসে সীমিত রাখার বিষয়টি। এটা করা হলে আফ্রিকা এবং ক্ষুদ্র দ্বীপ রাষ্ট্রগুলোতে বড় ধরনের বিপর্যয় নেমে আসবে। এই খসড়ায় গ্রিনহাউস গ্যাসের নির্গমন কমানোর লক্ষ্যমাত্রা খুব উচ্চাকাঙ্খী নয়, নিচু পর্যায়ের। এই খসড়া চুক্তি গরিব দেশগুলোকে চিরকালের জন্য দারিদ্র্যের দুষ্টচক্রে আবদ্ধ করবে।
তিনি আরও বলেন, “কারণ, চুক্তির খসড়াটি আস্বাভাবিকভাবে ত্রুটিপূর্ণ। আজ কী ঘটছে? আমরা যেমনটা সন্দেহ করে আসছিলাম যে ডেনিশ সরকার এবং বিশ্বের অন্যান্য দেশের সহায়তায় যুক্তরাষ্ট্র একটি চুক্তি চাপিয়ে দেবে। এটা জাতিসংঘের ঐতিহ্যের চরম লংঘন। চুক্তি কারো উপর চাপিয়ে দেওয়া যায় না। কোনো নির্দেশনামূলক কাঠামো, গণতন্ত্র, স্বচ্ছতা এবং স্বাধীন রাষ্ট্রের প্রতি কোনো শ্রদ্ধাবোধ নেই।”
“কারণ ২৮ টি দেশ বাকিদের পক্ষে সিদ্ধান্ত নিচ্ছে।”
তিনি আরও বলেন, “এই চুক্তি এখন পর্যন্ত একটি আইডিয়া মাত্র। কোন একটি দেশ বা পক্ষ যদি তাতে দ্বিমত পোষণ করলে চুক্তি হবে না।”
জি-৭৭ এই চুক্তির খসড়া প্রত্যাখ্যান করবে কিনা জানতে চাইলে লুমুম্বা বলেন, “আমরা এখনো আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছি। জি-৭৭ সদস্য দেশগুলোর কাছে আনুষ্ঠানিকভাবে এখনো চুক্তির কপি পৌঁছায়নি।

Check Also

করোনাযুদ্ধে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিমকে বুড়িচংয়ে সমাহিত

বুড়িচং প্রতিনিধিঃ করোনাযুদ্ধে পুলিশে প্রথম জীবন উৎসর্গকারী কনস্টেবল জসিম উদ্দিনকে (৩৯) কুমিল্লায় সমাহিত করা হয়েছে। ...