BIGtheme.net http://bigtheme.net/ecommerce/opencart OpenCart Templates
Home / প্রচ্ছদ / কুমিল্লা জেলা / দেবিদ্বারে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান অভিযুক্তদের জেল-জরিমানা
DEBIDWAR PICTURE - mobil coart- 07.08.14.

দেবিদ্বারে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান অভিযুক্তদের জেল-জরিমানা

এবিএম আতিকুর রহমান বাশার :–

কুমিল্লা-সিলেট মহাসড়কে চলাচলকারী যাত্রীবাহী বাসের অধিকাংশেরই কোন বৈধ কাগজপত্র নেই। এ সড়কের যানবাহন নিয়ন্ত্রনে নেই কোন তদারককারী সংস্থা। বৈধ কাগজপত্র ও ফিটনেস বিহীন গাড়ি এবং গাড়ির হেলপার, কন্ট্রাক্টরদের মতো অপরিপক্ক-আনারি চালক দিয়ে গাড়ি চলানোর কারনে প্রতিনিয়ত ঘটে যাওয় সড়ক দূর্ঘটনা হতাহতসহ জানমালের ব্যপক ক্ষতি সাধন হচ্ছে। এমন চিত্রই ফুটে উঠেছে বৃহস্পতিবার কুমিল্লার দেবিদ্বারে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযানে। নাগরিকদের চলাচলে নিভিগ্ন করতে নিউমার্কেট এলাকায় জানজট নিরসন এবং ফুটপাত অবমুক্ত করনে ওই অভিযান পরিচালনা করা হয়।
ভ্রাম্যমান আদালত যে গাড়িটিই আটক করে সে গাড়ির চালক বা সংশ্লিষ্টরা কোন বৈধ কাগজপত্র দেখাতে পারেনি, এমনকি ড্রাইভিং লাইসেন্স’র ফটোকপিও না। অজুহাত তাদের কাগজপত্র সবই আছে তবে বাড়িতে। বৈধ কাগজপত্র বিহীন গাড়ি চালানো কি বৈধ ? জানতে চাইলে সংশ্লিষ্টরা জানায়, আমাদের চলাচলে কেউ কখনো জবাব দিহীতা চায়নি, ছোটখাট অসুবিধা অর্থের বিনীময়ে শেষ করে ফেলি। তাই আমাদের কাছে কাগজ পত্রের গুরুত্ব তেমন ছিলনা। এখন থেকে কাজপত্র সাথে রাখব। আমাদের গাফলতি নিয়ে সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের কেউ কখনো কঠোরও হননি। এক পর্যায়ে ভ্রাম্যমান আদালতের সংবাদে ‘কুমিল্লা-সিলেট মহাসড়কে যাত্রাবাহী বাস চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। দুপুর সোয়া একটায় ভ্রাম্যমান আদালত উঠে গেলে যানবাহন চলাচল সাভাবিক হতে দেখা যায়। অপর দিকে নিউমার্কেট এলাকার যানজট, ফুটপাতি অবৈধ দোকানপাট পূর্বের অবস্থানে ফিরে আসে।
বৃহস্পতিবার সকাল ১১টা থেকে দুপুর সোয়া ১টা পর্যন্ত ভ্রাম্যমান আদালত’র নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও দেবিদ্বার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ হোসেন’র নেতৃত্বে পরিচালিত ভ্রাম্যমান আদালত’র অভিযান পরিচালনা করা হয়। এসময় দেবিদ্বার থানার উপ-পরিদর্শক(এসআই) গোলাম কিবরিয়াসহ একদল পুলিশ সদস্য ছিলেন। অভিযান পরিচালনাকালে ৫টি ফলের দোকানের ব্যবসায়ি, ৩টি সি,এন,জি চালিত অটোরিক্সা, ২টি সুগন্ধা ও ১টি জনতা পরিবহনের যাত্রীবাহী বাস’র চালকসহ ১১জনকে আটক করে ২০০৯সালের পৌর ও ১৮৬০সালের ১৮৬ ধারায় এবং ১৯৮৩সালের মোটরযান আইনের ১৩৮ ধারায় ২জনকে বিভিন্ন মেয়াদে জেল এবং ৯জনকে ৯০টাকা থেকে ৫হাজার টাকা করে মোট ১৪হাজার ৪৯০ টাকা জরিমানা করেছে। এদের মধ্যে ১৮৬০সালের ১৮৬ ধারায় ফল ব্যবসায়ি মোঃ হানিফকে ১৫দিনের সশ্রম কারা দন্ড এবং সিএনজি চালক মোঃ জয়নালকে ১৯৮৩সালের মোটরযান আইনের ১৩৮ ধারায় সশ্রম কারা দন্ড দেয়া হয়। ফল ব্যবসায়ি কাজী আবু তাহেরকে ৫হাজার টাকা, ফল ব্যবসায়ি কিসির মিয়াকে ২হাজার টাকা, সিএনজি চালক মোমেন মিয়াকে ৯০টাকা, ফল ব্যবসায়ি মোঃ ফারুক মিয়াকে ২হাজার টাকা, আব্দুর রহমানকে ২হাজার টাকা, গোলাম মোস্তফাকে ২হাজার টাকা, সুগন্ধা পরিবহনের চালক মোঃ শহিদ মিয়াকে ৫শত টাকা, আব্দুল কাদেরকে ৫শত টাকা, জনতা পরিবহনের চালক আব্দুল হাকিমকে ৪শত টাকা জরিমানা প্রদান করা হয় এবং অনাদায়ে প্রত্যেকের ৭দিনের জেল হওয়ার কথা থাকলেও প্রত্যেকেই নগদ টাকা পরিশোধ করে জেল থেকে মুক্ত হয়।
ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও দেবিদ্বার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ হোসেন বলন, নাগরিক সুবিধা রক্ষার স্বার্থে অনিয়ম, দূর্নীতি, অবৈধ কর্মকান্ডের বিরুদ্ধে আমাদের অভিযান অব্যাত থাকবে।

Check Also

Muradnagar=23-03-19=

করিমপুর মাদরাসায় বোখারী শরীফের খতম ও দোয়া

মো. হাবিবুর রহমান :– কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলার করিমপুর জামিয়া দারুল উলূম মুহিউস্ সুন্নাহ মাদরাসায় ১৪৪০ ...

Leave a Reply